বর্ষণমুখর ছিল সারা দেশ : আজ থেকে হ্রাস পাবে একটানা বৃষ্টি

সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত ফেনীতে ৩০৬ মিলিমিটার
নিজস্ব প্রতিবেদক

স্থল নি¤œচাপের প্রভাবে সারা দেশ ছিল বর্ষণমুখর। দেশের বেশির ভাগ এলাকায় শত মিলিমিটারের বেশি বৃষ্টি হয়েছে। কোথাও কোথাও বৃষ্টির পরিমাণ ৩০০ মিলিমিটারও ছাড়িয়ে গেছে। আবহাওয়া অফিস বলছে, বঙ্গোপসাগর থেকে উঠে আসার পর থেকে নি¤œচাপটি দীর্ঘক্ষণ ছিল স্থলভাগে। ফলে দ্ইু দিন থেকে দেশের সর্বত্র অঝোর ধারায় বৃষ্টি হওয়ার এটাই কারণ। গতকাল সকাল বেলা স্থল নি¤œচাপটি দেশের পশ্চিমাঞ্চলে অবস্থান করলেও বিকেলের দিকে চলে আসে টাঙ্গাইল ও এর আশপাশের এলাকায়। আজ থেকে বৃষ্টির মাত্রা কিছুটা কমে আসবে। প্রক্রিয়াটি আজ কোনো এক সময়ে নি¤œচাপ থেকে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হয়ে স্থল লঘুচাপে পরিণত হয়ে যেতে পারে। এমনকি আরো দুর্বল হয়ে এটা গুরুত্বহীন হয়ে যাবে। ফলে সোমবার থেকে দেশব্যাপী ভেজা মাটি ও পরিবেশ শুকাতে শুরু করবে। বৃষ্টি হ্রাস পাওয়ায় আজ দেশের তাপমাত্রায়ও পরিবর্তন আসতে পারে। হঠাৎ করে দেখা যেতে পারে মেঘের ফাঁকে সূর্যের মুখ। আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, আজ দেশের সার্বিক তাপমাত্রা দিনের বেলা ২ থেকে ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত বৃদ্ধি পেতে পারে। আবহাওয়া অফিস কাল থেকে বৃষ্টি হ্রাস পাওয়ার পূর্বাভাস দিলেও আগামী বৃহস্পতিবার পর্যন্ত হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি হওয়ার আভাস দিয়েছে। তবে তা বিক্ষিপ্তভাবে দেশের বিভিন্ন স্থানে হতে পারে।
আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের পশ্চিমাঞ্চল এলাকায় অবস্থানরত স্থল নি¤œচাপটি উত্তর ও উত্তর-পূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে গতকাল সন্ধ্যার দিকে টাঙ্গাইল ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় অবস্থান করছিল। এটি আরো উত্তর ও উত্তর-পূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হয়ে যেতে পারে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর এলাকায় বায়ু চাপের তারতম্যের আধিক্য বিরাজ করছে এবং গভীর সঞ্চালনশীল মেঘমালা তৈরি অব্যাহত রয়েছে। এর আগে গতকাল সকালের দিকে স্থল নি¤œচাপটি গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ এবং তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চল ও উড়িষ্যা এলাকায় অবস্থান করছিল। পরে এটি উত্তর ও উত্তর-পূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে পশ্চিমবঙ্গ ও বাংলাদেশের পশ্চিমাঞ্চল এলাকা পর্যন্ত বিস্তৃত হয়। এটি আরো উত্তর ও উত্তর-পূর্ব দিকে অগ্রসর হয়ে ক্রমান্বয়ে দুর্বল হয়ে যেতে পারে।
স্থল নি¤œচাপটি যে এলাকায় ছিল এর আশপাশে ভারী থেকে ভারী বৃষ্টি হয়েছে। চলতি অক্টোবর মাসে বঙ্গোপসাগরে একটি নি¤œচাপ ও একটি সুস্পষ্ট লঘুচাপের সৃষ্টি হয়। একটি গত ৮ অক্টোবর সুস্পষ্ট লঘুচাপ হয়ে দ্রুত নি¤œচাপ হয়ে এটা স্থলে উঠে স্থল নি¤œচাপে পরিণত হয়ে দুর্বল হয়ে পড়ে। পরের নি¤œচাপের প্রভাবে গতকাল পর্যন্ত ভারী বর্ষণ হয়েছে সারা দেশে।
স্থল নি¤œচাপের প্রভাবে গতকাল দেশে সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত হয় ফেনীতে ৩০৬ মিলিমিটার। বিভাগগুলোর মধ্যে সিলেট ও রংপুর বিভাগে তুলনামূলক কম বৃষ্টি হয়েছে। সবচেয়ে বেশি বৃষ্টি হয়েছে ঢাকা, চট্টগ্রাম, রাজশাহী ও বরিশাল বিভাগে।
চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্কতা সঙ্কেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত নিরাপদ আশ্রয়ে থাকতে বলা হয়েছে।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.