ঢাকা, রবিবার,১৯ নভেম্বর ২০১৭

উপমহাদেশ

পালানোর ভয়ঙ্কর পরিকল্পনা গুরমিতের

নয়া দিগন্ত অনলাইন

১৭ অক্টোবর ২০১৭,মঙ্গলবার, ১৮:০৬


প্রিন্ট
পালানোর ভয়ঙ্কর পরিকল্পনা গুরমিতের

পালানোর ভয়ঙ্কর পরিকল্পনা গুরমিতের

গ্রেফতারি এড়াতে ভারত ছেড়ে পালানোর ছক কষেছিলেন ধর্ষক বিতর্কিত গুরমিত সিং। স্বঘোষিত গডম্যানের পাসপোর্ট বাজেয়াপ্ত করে দাবি করেছে হরিয়ানা পুলিশ।

রাম রহিমের ছায়া সঙ্গিনী হানিপ্রীতকে নিয়ে গঙ্গানগরের গুরুসর মোডিয়া গ্রামে তল্লাশি চালান তদন্তকারীরা। জানা গেছে, তল্লাশির সময় একটি ব্যাগ থেকে উদ্ধার হয় দুটি পাসপোর্ট- একটি আসল ও একটি জাল। এছাড়াও বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ নথি বাজেয়াপ্ত করা হয়।

বিদেশে পালানোর জন্যে এই জাল পাসপোর্ট তৈরি করা হয়েছিল বলে দাবি করেছে পুলিশ। পাসপোর্ট তৈরিতে কে বা কারা গুরমিতকে সাহায্য করেছিল তা জানার চেষ্টা করা হচ্ছে।


সহিংসতায় অভিযুক্ত হানিপ্রীত ঘনিষ্ঠ গ্রেফতার
ডেরা সাচ্চা সওদার খাদ্য পণ্য উৎপাদনের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ছিন্দর পাল অরোরাকে গ্রেফতার করেছে বিশেষ তদন্তকারী দল (‌সিট)‌। পঞ্চকুল্লায় ২৫ আগস্ট ডেরা সমর্থকরা যে তাণ্ডব চালিয়েছিল তার সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে। ধর্ষণে জেল হাজতের সাজা পাওয়া ডেরা প্রধান গুরমিত সিং–এর বিশেষ আস্থাভাজন ছিলেন তিনি। এমএসজি ব্রান্ডে ডেরা যে ব্যবসা করত তার ডিরেক্টর পদে ছিলেন অরোরা। ২০১৬ সালে এই ব্যবসা শুরু করে ডেরা।

পঞ্চকুল্লার পুলিশ কমিশনার এ এস চাওলা বলেছেন, ১৭ আগস্ট সিরসায় ডেরার প্রধান কার্যালয়ে একটি বৈঠকে যোগ দেন অরোরা। সেখানেই তাণ্ডবের পরিকল্পনা চূড়ান্ত করা হয়। তাছাড়া, হানিপ্রীতের সঙ্গেও তিনি বৈঠক করেন। ২৫ আগস্ট ধর্ষণে দোষী সাব্যস্ত হওয়ার পরে যে সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ে তাতে অরোরার কী ভূমিকা ছিল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

 

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫