ঢাকা, বৃহস্পতিবার,১৪ ডিসেম্বর ২০১৭

ক্রীড়া দিগন্ত

ব্যাটিংয়ে প্রত্যাশা পূরণ হয়নি

ক্রীড়া প্রতিবেদক

১৩ অক্টোবর ২০১৭,শুক্রবার, ০০:০০


প্রিন্ট

দক্ষিণ আফ্রিকার সফর সূচনায় তিন দিনের প্রস্তুতি ম্যাচটা তবু ভালো হয়েছিল। ওয়ানডে সিরিজের আগে কাল যে ম্যাচটা খেলেছে বাংলাদেশ দল সেটা আসলে সেভাবে হয়নি। দক্ষিণ আফ্রিকার বোর্ড একাদশের বিপক্ষে ম্যাচে হেরেছে বাংলাদেশ। সেটা বড় ব্যবধানেও। সেটা নিয়ে আসলে প্রশ্ন না। প্রস্তুতি ম্যাচ তো এমনই। যেখানে ব্যাটসম্যানরাও অনেক কিছুর পরীক্ষা-নিরীক্ষাতে থাকেন। ফলে এ ম্যাচের রেজাল্ট তেমন মুখ্য না। এরপরও একটা কথা থেকেই যায়। তাই বলে কারোরই কি পারফরম্যান্সটা সেভাবে হবে না? ব্যাট হাতে এক সাকিব আল হাসান ও সাব্বির রহমান ছাড়া কারোরই হাফ সেঞ্চুরি নেই। বড় কথা ৫০ ওভার ব্যাটিংই করতে পারেনি টিম বাংলাদেশ। অল-আউট হয়েছেন তারা ২৫৫ রান করে ৪৮.১ ওভারে। পাঁচ নম্বরে ব্যাটিংয়ে নেমে সাকিব করেন ৬৮ রান ৬৭ বলে। এ ছাড়া লোয়ার অর্ডারে সাব্বিরের ৫৪ বলে করা ৫২ রান ইনিংনের উল্লেখযোগ্য। তামিম এ ম্যাচে খেলেননি। ফলে ইনিংস ওপেন করেন সৌম্য ও ইমরুল। সৌম্য টানা ব্যর্থতার ঘোরটোপে আছেন। এ ম্যাচেও ৩ রান করে আউট তিনি। ওয়ান ডাউনে নামা লিটন দাসও আউট হয়েছেন ৮ রান করে। ইমরুল অবশ্য ২৭ করেছেন। ৪-এ নেমে মুশফিক করেছেন ২২। অন্যদের মধ্যে মাহমুদুল্লাহ ২১, নাসিরের ১২ রান ইনিংসের উল্লেখযোগ্য। ওয়ানডে ক্রিকেটে এখন আড়াই শ’ বা তার ধারে কাছে থাকা রান তেমন রানই নয়। দক্ষিণ আফ্রিকার একাদশের ব্যাটিং দেখে অন্তত তাই মনে হলো। স্বাগতিকেরা এ ম্যাচেও তাদের শক্তিমত্তার ইঙ্গিত দিয়েছেন। দুই ওপেনার মার্করাম ও ব্রিজকে পাত্তাই দিচ্ছিলেন না বাংলাদেশের বোলারদের। এরা খেলেন ১৪৭ রানের ওপেনিং পার্টনারশিপ। এ সময় অবশ্য নাসির হোসেন এসে আউট করেন সেঞ্চুরির পথে থাকা মার্করাম। ৮২ করে রিটার্ন ক্যাচ দিয়ে আউট হন তিনি। ৬৮ বলে এক ছক্কা ও ৮ চারের সাহায্যে ওই রান করেন তিনি। এরপর আউট হন ব্রিজকে। দলীয় ১৭৪ রানে মাশরাফি বোল্ড করেন এ ব্যাটসম্যানকে। ৭১ রান করেছিলেন তিনি। এরপর জেপি ডুমিনি ও এবি ডিভিলিয়ার্স দলের ১৮৮ রান নিয়ে ব্যাটিং করছিলেন। এ ম্যাচে যে স্বাগতিকেরা সহজেই জিতে যাবে সেটা আর বলার অপেক্ষা রাখে না। তবে এ ম্যাচের ভুলত্রুটি শুধরে মূল ম্যাচে নামবেন মাশরাফিরা এটাই প্রত্যাশা।

 

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫