ঢাকা, সোমবার,২০ নভেম্বর ২০১৭

রংপুর

দুদকে দুর্নীতির মামলা

রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের চার কর্মকতা বরখাস্ত

রংপুর সংবাদদাতা

০৪ অক্টোবর ২০১৭,বুধবার, ২০:২৭


প্রিন্ট
রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের চার কর্মকতা বরখাস্ত

রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের চার কর্মকতা বরখাস্ত

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) মামলায় আদালতে চার্জশিটভুক্ত রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের চার কর্মকর্তাকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে কর্তৃপক্ষ। মঙ্গলবার বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫৪তম সিন্ডিকেট সভায় এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

সিন্ডিকেট সভা সূত্র জানায়, সাময়িক বরখাস্ত  চার কর্মকর্তা হলেন সাব-রেজিস্ট্রার শাহজাহান আলী মন্ডল, উপ- পরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) এটিজিএম গোলাম ফিরোজ, সহকারী রেজিস্ট্রার মোর্শেদ উল আলম রনি এবং সহকারী পরিচালক (অর্থ ও হিসাব) খন্দকার আশরাফুল আলম।

সূত্র মতে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের অনুমোদন ছাড়াই ৩৪৯ জন কর্মকর্তা-কর্মচারি নিয়োগের অভিযোগে দুদকের রংপুর সমন্বিত কার্যালয়ের উপ-পরিচালক আবদুল করিম ২০১৩ সালে একটি মামলা করেন। ওই চার কর্মকর্তার পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি অধ্যাপক আব্দুল জলিল মিয়াকেও মামলায় আসামি করা হয়।

তদন্ত শেষে চলতি বছরের ১৯ মার্চ সাবেক ভিসি ড. আব্দুল জলিল মিয়াসহ ওই চার কর্মকর্তাকে আসামি করে আদালতে অভিযোগপত্র পাঠায় দুদক। গত ২০ জুলাই মামলার চার্জশিট আমলে নিয়ে বিশেষ জজ আদালত সাবেক ভিসি ড. আব্দুল জলিল মিয়া ও শাহজাহান মন্ডলের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন এবং বাকি তিন আসামির বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন। গত ২০ আগস্ট তারা জামিনে মুক্তি পান।

এদিকে গত ১৬ জুলাই রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫৩তম সিন্ডিকেট সভায় নিয়ম ভঙ্গ করে ওই চার কর্মকর্তা উপ-রেজিস্ট্রার শাহজাহান আলী মন্ডলকে অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার, উপ-পরিচালক (পরিকল্পনা ও উন্নয়ন) এটিএম গোলাম ফিরোজকে অতিরিক্ত পরিচালক, সহকারী রেজিস্ট্রার মোর্শেদ উল আলম রনিকে উপ-রেজিস্ট্রার ও অর্থ ও হিসাব শাখার সহকারী পরিচালক খন্দকার আশরাফুল আলমকে উপ-পরিচালক পদে পদোন্নতি দেয়া নিয়ে হৈচৈ শুরু হয়। এমন পরিস্থিতিতে নানান মঙ্গলবার সিন্ডিকেট সভায় তাদের পদোন্নতি স্থগিতসহ সাময়িক বহিষ্কারাদেশ দেয়া হয়।

 বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্টার ও সিন্ডিকেটের সদস্য সচিব ইব্রাহীম কবীর জানান, বিষয়টি নিয়ে পরে কথা বলা যাবে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫