ঢাকা, বৃহস্পতিবার,১৯ অক্টোবর ২০১৭

তুরস্ক

ফ্রি খাবার দিচ্ছে হোটেল!

নয়া দিগন্ত অনলাইন

৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৭,শনিবার, ১৮:৪১


প্রিন্ট
ফ্রি খাবার দিচ্ছে হোটেল!

ফ্রি খাবার দিচ্ছে হোটেল!

পকেটেও  নেই টাকা। আবার পেটেও নেই খাবার।  ক্ষুধার্ত আপনার কোনো চিন্তা নেই। হোটেলের মুখরোচক ও সুস্বাদু খাবার বিনামূল্যেই পাবেন তুরস্কের পূর্বাঞ্চলের আনাটুলিয়ান শহরের মার্কেজ রেস্টুরেন্টে। 

কারো কাছে অর্থ না থাকলে হোটেলটির মালিক ও ম্যানেজার ৫৫ বছর বয়সী মহেমেত ওজতুর্ক তাকে বিনামূল্যে খাবার দেন। ১৯৪০ সালে রেস্টুরেন্টটি চালু হয়। এটি ছিল শহরের প্রথম হোটেল। হোটেলের তখনকার মালিক বিনামূল্যে খাবার খাওয়াতে শুরু করেন।

মহেমেত ওজতুর্ক বলেন, আমার হোটেলে প্রচুর ভিড় থাকে। সে কারণে আমি তিনটি টেবিল রিজার্ভ করে রাখি। ওই তিনটি টেবিলে শুধুমাত্র গরিবদের ফ্রি খাবার দেয়া হয়।  প্রতিদিন অন্তত ১৫ জনকে  ফ্রি খাওয়ানো হয়। 

 

মাঝ আকাশে জন্ম আজীবন ফ্রি বিমান ভ্রমণ

ফ্লাইটের মাঝপথে বিমানে জন্মগ্রহণ করেছে শিশুটি। ভূত-ভবিষ্যৎ সম্পর্কে তার কিছু জানা থাকার কথা নয়। কিন্তু জন্মই যে তার জন্য সৌভাগ্যের দুয়ার খুলে দিয়েছে, তা সে এখন না জানলেও বিশ্ববাসী জেনে গেছে। বিমানে জন্ম নেয়ায় শিশুটির জন্য আজীবন বিনা মূল্যে বিমান ভ্রমণের সুযোগ দিচ্ছে ভারতের জেট এয়ারওয়েজ।

রোববার মধ্য আকাশে জেট এয়ারওয়েজের একটি বিমানে ছেলে সন্তানের জন্ম দিয়েছেন ভারতের কেরালা রাজ্যের এক নারী। সৌদি আরব থেকে ১৬২ যাত্রী নিয়ে ভারতে আসছিল বিমানটি।
জেট এয়ারওয়েজের ৯ডব্লিউ৫৬৯ ফাইটটি শনিবার রাত ২২টা ৫৫ মিনিটে দাম্মাম থেকে কোচির উদ্দেশে রওনা দেয়। এই বিমানে ছিলেন অন্তঃসত্ত্বা ওই নারী। হঠাৎ তার প্রসব বেদনা শুরু হয়। বিমানের ক্রুরা মেডিক্যাল ইমার্জেন্সি ঘোষণা করেন। তখন ফাইটটির নির্ধারিত রুট পরিবর্তন করে সেটি মুম্বাইয়ের দিকে নেয়া হয়।

বিমানটি তখন আরব সাগরের ৩৫ হাজার ফুট ওপর দিয়ে চলছে। প্রসব বেদনা তীব্রতর হয়ে ওঠে। তার কাছে ছিলেন কয়েকজন ক্রু এবং ওই বিমানের কেরালাগামী একজন নার্স। তাদের উপস্থিতিতে সন্তান প্রসব করেন ওই নারী। কিছু সময় পর মুম্বাইয়ে অবতরণ করে বিমানটি। মা ও শিশুকে দ্রুত হাসপাতালে নেয়া হয়। দু’জনের অবস্থাই এখন স্থিতিশীল।

মুম্বাইয়ে অবতরণ করায় ৯০ মিনিট দেরিতে কোচি পৌঁছায় বিমানটি। তবে বিমানে সন্তান জন্মগ্রহণ করায় যারপরনাই খুশি জেট এয়ারওয়েজ। এ কোম্পানির বিমানে সন্তান জন্ম নেয়ার ঘটনা এটিই প্রথম। জেট এয়ারওয়েজ ঘোষণা দিয়েছে, শিশুটি আজীবন তাদের যেকোনো ফাইটে বিনামূল্যে ভ্রমণ করতে পারবে।

সূত্র : বিবিসি

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫