ঈদে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা থাকবে সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালে

মারিয়া নূর

ঈদুল আজহা উপলক্ষে সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালে ঘরেফেরা মানুষের চাপ থাকে কয়েকগুণ বেশি। তাই রাজধানী থেকে দক্ষিণাঞ্চলের ঘরেফেরা যাত্রীদের চাপ সামলাতে ও নিরাপত্তায় এবার অতিরিক্ত কয়েক স্তরের ব্যবস্থা থাকবে সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালে। এবারো সব ধরনের অনাকাক্সিক্ষত পরিস্থিতি এড়াতে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ) এবং ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) একসাথে কাজ করবে। এবার যাত্রীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতে সদরঘাটের ১৪টি প্রবেশপথে মোট ২৮টি সিসিটিভি ক্যামেরা বসানো হয়েছে। যাত্রীদের সুবিধার জন্য চার হাজার ২০০ বর্গফুট পার্কিং স্পেস করা হয়েছে। মানুষের নিরাপত্তার স্বার্থে কয়েকটি স্তরে নেয়া হয়েছে ব্যবস্থা। পাশাপাশি ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি), কোস্ট গার্ড, র্যাব, আনসার বাহিনী, বিআইডব্লিউটির নিজস্ব ডুবুরি দল, বাংলাদেশ ন্যাশনাল ক্যাডেট কোর (বিএনসিসি) এবং নৌ-নিরাপত্তার ক্যাডেট দল কাজ করবে। সাধারণ মানুষ নিরাপত্তাহীনতায় না ভোগে সে দিকে বিশেষ নজর রাখা হবে।
বিআইডব্লিউটিএর পক্ষ থেকে যাত্রীদের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা ও তথ্যাদি জানিয়ে মাইকিং ব্যবস্থা থাকবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শুরু করে বাদামতলী পর্যন্ত। ভিড় বাড়লে এই রাস্তাকে একমুখী রাস্তায় রূপান্তর করা হবে বলেও জানানো হয়েছে। এ ছাড়া যেকোনো লঞ্চে যাত্রী বোঝাই হওয়ার সাথে সাথে ঘাট থেকে গন্তব্যের উদ্দেশে ছেড়ে যেতে হবে। নির্ধারিত সময়ের আগে কোনো লঞ্চ ঘাটে আসতে পারবে না, এলে তার রুট পারমিট বাতিল ও জরিমানা করা হবে, সদরঘাটে মালিক পক্ষ সবসময় মাইকিং করবে, ঈদের সময় নৌযানে কোনো মালামাল বহন করা যাবে না।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.