ঢাকা, শুক্রবার,১৮ আগস্ট ২০১৭

ফ্যাশন

ফ্যাশন অ্যান্ড স্টাইল

জারীন তাসনিম

০৭ আগস্ট ২০১৭,সোমবার, ১৯:১৬ | আপডেট: ০৭ আগস্ট ২০১৭,সোমবার, ১৯:৫১


প্রিন্ট
ফ্যাশন অ্যান্ড স্টাইল

ফ্যাশন অ্যান্ড স্টাইল

একজনের সাজ তখনই সম্পূর্ণ হয় যখন তার পায়ের জুতা থেকে শুরু করে চুল পর্যন্ত সাজসজ্জা সামঞ্জস্যপূর্ণ ও সুবিন্যস্ত হয়। তাই ফ্যাশনেবল ও স্টাইলিশ হয়ে ওঠার জন্য পা থেকে চুল পর্যন্ত সাজ পোশাক হতে হবে পারফেক্ট। তাই তো জামা বা কামিজের মতো সালোয়ার, চুড়িদার, পায়জামা প্রভৃতির ডিজাইনও সমান গুরুত্বপূর্ণ। বিভিন্ন ডিজাইনের জামার সাথে সালোয়ারগুলোও হয় বৈচিত্র্যপূর্ণ।

ফ্যাশনের পালা বদলে দীর্ঘ দিন সালোয়ারের ভূমিকা ছিল উল্লেখযোগ্য। কখনো সালোয়ার, কখনো চুড়িদার, ঘাগরা, লেগিংস, ধুতিছাঁট পায়জামা থেকে শুরু করে পালাজ্জো সবই বেশ গুরুত্বের সাথেই অবস্থান করেছে ফ্যাশনের জগতে। এ সময়ে বিভিন্ন ডিজাইনের সালোয়ার ফ্যাশন জগতে অবস্থান করছে দাপটের সাথে। তবে ডিজাইনের সাথে সাথে এগুলোর প্যাটার্নেও এসেছে পরিবর্তন। কখনো বেশি কুচি কখনো কুচি কম দেখা গেছে সালোয়ারের ডিজাইনে।

একইভাবে সালোয়ারের ডিজাইনে এসেছে ধুতিছাঁট, কখনো প্যান্টের ছাঁট। কখনো পায়ের দিকে চওড়া পাইপিং ছিল ফ্যাশনের অংশ হয়ে, কখনো চাপা পাইপিং। তবে প্রতিটি পোশাকের সাথে মানিয়েই বেছে নেয়া হয় সালোয়ার, পালাজ্জো বা প্যান্ট। লম্বা কামিজের সাথে সব ধরনের লেগিংস বা প্যান্টস পরা যায়। জামার লেন্থ ছোট হলে এর সাথে বেশি কুচি দেয়া সালোয়ার আজকাল অনেকেই বেছে নিচ্ছে। বিশেষ করে অল্প বয়সী মেয়েরা।

পালাজ্জো ব্যাপক জনপ্রিয় সব বয়সী মেয়েদের কাছেই। কামিজ, টপস, ফতুয়া সব কিছুর সাথেই পালাজ্জো পরা হচ্ছে। একই সাথে চলছে ফ্যাশনাবল পেন্সিল প্যান্টস। পরিবর্তনের ছোঁয়ায় এসে আজকাল কামিজ বা ফতুয়ার সাথেও অনেকেই বেছে নিচ্ছেন। ফ্যাশনাবল ও স্টাইলিশ এগুলোর লেন্থের নিচের অংশে থাকছে বিভিন্ন কারুকাজ। কখনো ব্যবহার করা হয়েছে লেস, কখনো নেটের কাপড়। কোনো কোনোটাতে থাকছে অ্যামব্রয়ডারির কারুকাজ। সেই সাথে বিভিন্ন বোতামও ব্যবহারিত হচ্ছে এক্সেসরিজ হিসেবে। নিচের অংশে ফ্রিলও দেখা যাচ্ছে কোনো কোনোটার ওপর।

প্রতিটি মার্কেটেই রয়েছে আকর্ষণীয় ও বৈচিত্র্যপূর্ণ চুড়িদার, প্যান্টস, পালাজ্জো, সালোয়ার প্রভৃতির বিরাট কালেকশন। সিঙ্গেল কামিজের মতো এগুলো কেনা যায় আলাদা করে। এ ছাড়া এস্টেসি, ইয়েলো, ক্যাটসআই, সেইলর, জেন্টেল পার্ক সেলিব্রেশনস প্রভৃতি শপেও পেয়ে যাবেন এক্সক্লুসিভ ডিজাইনের এসব পোশাক।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫