ঢাকা, বুধবার,১৩ ডিসেম্বর ২০১৭

শিক্ষা

জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষায় অংশ নেয়ার সুযোগ না দিলে ব্যবস্থা

নিজস্ব প্রতিবেদক

০৭ আগস্ট ২০১৭,সোমবার, ১৮:২৭


প্রিন্ট

চলতি বছরের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও মাদরাসা দাখিল শিক্ষার্থীদের জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষার বিলম্ব ফি ছাড়াই অনলাইনে আবেদন ফরম পূরণ শেষ হচ্ছে আজ।
আবেদনকারী সবাইকে জেএসসি-জেডিসির চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেয়ার সুযোগ দিতে হবে।

এ পরীক্ষার জন্য কোনো ধরনের টেস্ট পরীক্ষা বা নির্বাচনী পরীক্ষার বিধান নেই। এ ধরনের পরীক্ষায় কেউ পাস না করলে তাকে চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নিতে বাধা দিলে স্কুলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ ব্যাপারে সতর্ক করে দিয়েছে আন্তঃবোর্ড সমন্বয় কমিটি।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের প্রধান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার সরকার নয়া দিগন্তকে বলেন, জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার জন্য কোনো ধরনের নির্বাচনী পরীক্ষার বিধান নেই। এ ধরনের কোনো পরীক্ষা স্কুল কর্তৃপক্ষ নিলে শিক্ষা বোর্ড তাতে বাধা বা নিষেধ করবে না। তবে, এ পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে কোনো শিক্ষার্থীকে চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নিতে বাধা দিলে অভিযোগের ভিত্তিতে ওই স্কুলের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ঢাকা শিক্ষা বোর্ড প্রধান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার সরকার আজ সোমবার নয়া দিগন্তকে বলেন, আগামী ১ নভেম্বর থেকে ১৮ নভেম্বরের মধ্যে জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার সময়সূচির প্রস্তাব করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের অনুমোদনের জন্য পাঠানো হয়েছে। মন্ত্রণালয় থেকে সহসাই এ ব্যাপারে ঘোষণা দেয়া হবে। এবার জেএসসিতে ২১ লক্ষাধিক শিক্ষার্থী চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেবে বলে ধারণা করছে আন্তঃবোর্ড সমন্বয় কমিটি। প্রায় চার লাখ মাদরাসা শিক্ষার্থী জেডিসিতে অংশ নিতে পারে।

জানা গেছে, বিলম্ব ফিসহ ৮ আগস্টের পর থেকে আবেদন ফরম পূরণের সময় দেয়া হতে পারে।

রাজধানীসহ দেশের বড় বড় শহরের নামী-দামী স্কুলের বিরুদ্ধে জেএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়ার আবেদন করলেও নির্বাচনী পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে না পারলে চূড়ান্ত পরীক্ষার সুযোগ না দেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ব্যাপারে আন্তঃবোর্ড সমন্বয় কমিটির পক্ষে ঢাকা শিক্ষা বোর্ড প্রধান পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার সরকার নয়া দিগন্তকে বলেন, এ ধরনের কিছু অভিযোগ আমাদের কাছেও এসেছে। তবে, কোনো স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে এ ধরনের অভিযোগ পাওয়া গেলেই তাদের বিরুদ্ধে শিক্ষা বোর্ড ব্যবস্থা নেবে। আবেদনকারী সব শিক্ষার্থীকেই চূড়ান্ত পরীক্ষায় অংশ নেয়ার সুযোগ দিতে হবে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫