টেরিটরি ওয়াইল্ড পার্কের ফেসবুক পেজ থেকে
টেরিটরি ওয়াইল্ড পার্কের ফেসবুক পেজ থেকে

ধবধবে সাদা সাপ নিয়ে তোলপাড়

নয়া দিগন্ত অনলাইন

সাদা সাপ! বিরল প্রজাতির এই সাপ মিলল অস্ট্রেলিয়ায়। এক স্থানীয় ব্যক্তি সাপটিকে উদ্ধার করেন। সাপটিকে আক্রমণ করেছিল একটি কুকুর। তিনি তাকে উদ্ধার করেন। এর পর সেটাকে টেরিটরি ওয়াইল্ড পার্ক নামের চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষের হাতে সেটি তুলে দেন। প্রায় ৩১ কিমি দৈর্ঘ্যের এই চিড়িয়াখানা অস্ট্রেলিয়ার অন্যতম একটি চিড়িয়াখানা। সেখানেই থাকবে এই বিরল প্রজাতির সাপ। তাকে এরই মধ্যে সাধারণের প্রদর্শনের জন্য রাখা হয়েছে।

সাপটি বিষধর প্রকৃতির নয়। তবু ধবধবে শরীরে কালো পুঁতির মতো চোখের দুর্দান্ত সমন্বয়ে এই সাপকে দেখলে চমক লাগবেই। সাপটির সাদা রংয়ের পিছনে রহস্য কী?


প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছিল, এটি জন্মগত ভাবে অ্যালবিনো। অ্যালবিনিজম হল একটি জন্মগত ব্যাধি, যা চুল, চোখ এবং ত্বককে বিবর্ণ করে দেয়। এই ধরনের অ্যালবিনো বাঘ, সিংহ, কুমির আনো নানা প্রজাতির প্রাণীর মধ্যে দেখা যায়।

পার্কের পক্ষ থেকে অবশ্য জানানো হয়েছে, সাপটি অ্যালবিনো নয়। অ্যালবিনো হলে তার চোখের রং গোলাপি হতো। আংশিক পিগমেন্টেশনের ফলেই তার চেহারায় এই বিকৃতি। জন্মগত ত্রুটির ফলেই এমন চেহারা হয়। যার ফলে তার চোখের রং কালো।


চিড়িয়াখানা কর্তৃপক্ষের বক্তব্য, সাধারণত এই ধরনের সাপ খুব বেশিদিন বাঁচে না। কেননা, যেহেতু তারা সাদা রংয়ের তাই তাদের ক্যামোফ্লেজের কোনো উপায় থাকে না। সহজেই তারা শত্রুর আক্রমণের শিকার হয়। এই পরিস্থিতিতে সাপটির বেঁচে যাওয়া সত্যি বিস্ময়কর বলে তারা জানান।

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.