ঢাকা, বুধবার,২৩ আগস্ট ২০১৭

বিবিধ

চুলপড়া বন্ধের ঘরোয়া উপায়

ফাহমিদা জাবীন

২৪ জুলাই ২০১৭,সোমবার, ১৯:০৪


প্রিন্ট
চুলপড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায়

চুলপড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায়

এক ঢাল কালো ঝলমলে চুলের চেয়ে বড় সৌন্দর্য আর কী হয়। কিন্তু চুলে যদি কোনো সমস্যা দেখা দেয় তাহলে ঘন ঝলমলে চুল পাওয়া সম্ভব নয়। চুলের সমস্যাগুলোর মধ্যে অন্যতম চুল পড়া। এ সময়ে চুল পড়া সমস্যায় ভোগেন না এমন কাউকে খুঁজে পাওয়া কঠিন। দূষণ, দুশ্চিন্তা, পুষ্টির অভাব, অসুস্থতা, বয়স প্রভৃতি কারণে চুল পড়তে পারে। এ ছাড়া বয়স বাড়ার সাথে সাথে চুল পড়াও বেড়ে যায়। এমনিতেও প্রতিদিন ৫০-১০০টা চুল পড়ে যাওয়াকে স্বাভাবিক হিসেবে ধরা যায়। তবে যদি চুলপড়া বেড়ে যায় তাহলে তা বন্ধে ব্যবস্থা নেয়া প্রয়োজন। নভীনস বিউটি পার্লারের সৌন্দর্য বিশেষজ্ঞ আমিনা হক চুলপড়া বন্ধে জানিয়েছেন কয়েকটি ঘরোয়া উপায়-

তেলের সাহায্যে মাসাজ : চুল পড়া বন্ধের প্রথম ধাপ হচ্ছে চুলে সঠিক তেলের ম্যাসাজ। ম্যাসাজ ত্বকে রক্ত সঞ্চালন বাড়ায়, মাথার ত্বককে কন্ডিশনিং করে, ত্বকের গোড়া শক্ত করে। অয়েল ম্যাসাজ একই সাথে মানসিক চাপ কমিয়ে রিল্যাক্স হতে সাহায্য করে।
নারকেল, আমন্ড, অলিভ, আমলা, ক্যাস্টর যেকোনো তেল ব্যবহার করতে পারে। এর সাথে কয়েক ফোঁটা রোজমেরি অ্যাসেনসিয়াল অয়েল মিশিয়ে নিন। হালকা গরম করে এই তেল সারা চুলে ও মাথায় ম্যাসাজ করে লাগান সপ্তাহে অন্তত এক দিন।

আমলকীর রস : চুলপড়ার কারণগুলোর মধ্যে অন্যতম ভিটামিন ‘সি’র স্বল্পতা। আমলকীতে রয়েছে প্রচুর ভিটামিন ‘সি’। এক টেবিল চামচ আমলকী বাটা ও এক টেবিল চামচ লেবুর রস এক সাথে মিশিয়ে চুলের গোড়ায় লাগান হালকা মাসাজ করে। এবার মাথায় একটি শাওয়ার ক্যাপ পরে নিন। এভাবেই থাকুন সারা রাত। সকালে চুলে শ্যাম্পু করে নিন।

মেথি : মেথি চুল পড়া বন্ধে খুবই কার্যকর একটি উপাদান। মেথি চুলের ফলিকল পুনর্গঠনে সাহায্য করে। এতে চুলের গ্রোথ বাড়ে ও চুল হয় মজবুত। ১ কাপ মেথি সারা রাত পানিতে ভিজিয়ে রাখুন। সকালে বেটে নিন। এই পেস্ট চুলে লাগিয়ে শাওয়ার ক্যাপ পরে নিন। এক ঘণ্টা পর ধুয়ে ফেলুন। মাসে এক দিন এই ট্রিটমেন্ট করতে হবে।

পেঁয়াজের রস : চুলপড়া বন্ধে পেঁয়াজের রস খুবই কার্যকর। কারণ এতে উচ্চমাত্রার সালফার রয়েছে, যা মাথার ত্বকে রক্তসঞ্চালন বাড়াতে সাহায্য করে। ফলিকল রিজেনারেট করে চুল মজবুত করে জ্বালাপোড়া কমায়। এর অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল প্রপারটিস মাথায় ছত্রাক ও জীবাণু ধ্বংস করে। চুলের গোড়া মজবুত করে চুল পড়া বন্ধ করে।
পেঁয়াজের রস তুলোর সাহায্যে মাথার ত্বকে বা চুলের গোড়ায় লাগিয়ে নিন। ৩০ মিনিট রাখুন, এরপর ধুয়ে শ্যাম্পু করে নিন।
৩ টেবিল চামচ পেঁয়াজের রস ও ২ টেবিল চামচ অ্যালোভেরা জেল একসাথে মিশিয়ে নিন। এর সাথে এক টেবিল চামচ অলিভঅয়েলও মেশাতে পারেন। এই মিশ্রণ চুলের গোড়ায় ম্যাসাজ করে লাগান। ৩০ মিনিট পর শ্যাম্পু করে ফেলুন। এই মিশ্রণ সপ্তাহে অন্তত দুই দিন ব্যবহার করুন কয়েক সপ্তাহ।

ঘৃতকুমারী জেল : ঘৃতকুমারী বা অ্যালোভেরা চুলের গ্রোথ বাড়াতে খুবই কার্যকর। এর এলকালাইজিং প্রপারটিজ চুল ও ত্বকে উচ্চমাত্রার চঐ সরবরাহ করে যা চুলকে মজবুত করে ও চুলের গ্রোথ বাড়াতে সাহায্য করে। স্কাল্পের ইরিটেশন ও খুশকি কমাতে সাহায্য করে অ্যালোভেরা জেল সরাসরি মাথার ত্বকে মাসাজ করুন। কয়েক ঘণ্টা রেখে এরপর ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে তিন থেকে চার দিন এই পদ্ধতি ব্যবহার করুন চুল পড়া কমিয়ে চুলকে স্বাস্থ্যোজ্জ্বল করতে।

প্রোটিন : শরীরে প্রয়োজনীয় পুষ্টির অভাব হলেও চুল পড়ে তাই চুলের স্বাস্থ্য ভালো রাখা প্রয়োজন। চুলের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে ভিটামিন ‘এ’, ‘বি’ ও ‘ডি’ সমৃদ্ধ খাবার খান। ডায়েটে প্রোটিন রাখুন। মাছ, গোশত, ডিম, ফলের রস ও মধু রাখুন পর্যাপ্ত পরিমাণে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫