ঢাকা, শনিবার,২২ জুলাই ২০১৭

অর্থনীতি

তিন মাসে কমেছে ২২ শতাংশ

রেমিট্যান্স আহরণে পিছিয়ে পড়ছে ইসলামি ব্যাংকগুলো

আশরাফুল ইসলাম

১৮ জুলাই ২০১৭,মঙ্গলবার, ০৫:৫৩


প্রিন্ট

রেমিট্যান্স আহরণে পিছিয়ে পড়েছে ইসলামি ব্যাংকগুলো। চলতি বছরের প্রথম তিন মাসে (জানুয়ারি-মার্চ) ইসলামি ব্যাংকগুলো রেমিট্যান্স আহরণ করেছে মোট রেমিট্যান্সের ২৭ শতাংশ, যেখানে আগের বছরের একই সময়ে ছিল ৩০ শতাংশ। শুধু মোটের ওপরই কমেনি, সামগ্রিকভাবেও কমে গেছে। মাত্র তিন মাসের ব্যবধানে গত বছরের একই সময়ের তুলনায় চলতি বছরের তিন মাসে রেমিট্যান্স কমেছে ২২ শতাংশ। বাংলাদেশ ব্যাংকের এক গবেষণা প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে।
ডেভেলপমেন্ট অব ইসলামিক ব্যাংকিং ইন বাংলাদেশ জানুয়ারি-মার্চ ২০১৬ শিরোনামে প্রকাশিত এ প্রতিবেদনে ইসলামি ব্যাংকগুলোর সামগ্রিক আর্থিক চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতিবেদন থেকে বলা হয়েছে, দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে বৈদেশিক রেমিট্যান্স আহরণ করে ইসলামি ব্যাংকগুলো গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে আসছে।
বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতিবেদন থেকে দেখা যায়, চলতি বছরের প্রথম তিন মাসে ইসলামি ব্যাংকগুলো রেমিট্যান্স আহরণ করেছে ছয় হাজার ৬৬০ কোটি টাকা, যেখানে গত বছরের একই সময়ে ছিল আট হাজার ৫১০ কোটি টাকা। আগের বছরের তিন মাসের চেয়ে চলতি বছরের তিন মাসে ইসলামি ব্যাংকগুলোর রেমিট্যান্স কমেছে এক হাজার ৮৫০ কোটি টাকা, যা শতকরা হিসাবে প্রায় ২২ ভাগ। আবার গত বছরের প্রথম তিন মাসে সামগ্রিকভাবে ব্যাংকগুলো যে পরিমাণ রেমিট্যান্স আহরণ করেছিল তার মধ্যে ইসলামি ব্যাংকগুলোর অবদান ছিল ৩০ শতাংশ, যেখানে চলতি বছরের একই সময়ে তা কমে নেমেছে ২৭ শতাংশে। 
ব্যাংকভেদে রেমিট্যান্স আহরণের চিত্র থেকে দেখা যায়, গত বছরের প্রথম তিন মাসে ইসলামি ব্যাংকগুলো যে পরিমাণ রেমিট্যান্স আহরণ করে এর মধ্যে ইসলামী ব্যাংকের অবদান ছিল ৮৮ শতাংশ, চলতি বছরের একই সময়ে তা কমে নেমেছে ৭৮ শতাংশে। আর ইউনিয়ন ব্যাংকের ১ শতাংশ থেকে কমে শূন্য দশমিক ৭৩ শতাংশে নেমেছে। তবে ইসলামী ব্যাংক ও ইউনিয়ন ব্যাংক বাদে অন্য ইসলামি ব্যাংকগুলোর অবদান বেড়ে গেছে। বেশি বেড়েছে আল আরাফা ইসলামী ব্যাংক ও সোস্যাল ইসলামী ব্যাংকের অবদান। বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতিবেদন থেকে দেখা যায়, গত বছরের প্রথম তিন মাসে রেমিট্যান্স আহরণে ইসলামি ব্যাংকগুলোর মধ্যে আল আরাফা ইসলামী ব্যাংকের অবদান ছিল ৩ শতাংশ, সেখানে চলতি বছরের একই সময়ে তা বেড়ে হয়েছে প্রায় ৭ শতাংশ। রেমিট্যান্স আহরণে গত বছরের প্রথম তিন মাসে সোস্যাল ইসলামী ব্যাংকের অবদান ছিল ২ দশমিক ৯৬ শতাংশ, সেখানে চলতি বছরের একই সময়ে বেড়ে হয়েছে প্রায় সাড়ে ৬ শতাংশ। এর বাইরে এক্সিম ব্যাংকের ১ শতাংশ থেকে বেড়ে ১ দশমিক ৬১ শতাংশ, ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের ২ শতাংশ থেকে সাড়ে তিন শতাংশ, শাহ্জালাল ইসলামী ব্যাংকের ১ শতাংশ থেকে বেড়ে ১ দশমিক ২৩ শতাংশ হয়েছে। 
প্রসঙ্গত, দেশে পূর্ণাঙ্গ ইসলামি ব্যাংক রয়েছে ৮টি এবং শাখা রয়েছে ১ হাজার ৪৮টি। প্রচলিত ব্যাংকিংয়ের পাশাপাশি ইসলামি ব্যাংকের শাখা রয়েছে এমন ব্যাংক রয়েছে ৯টি এবং তাদের শাখা রয়েছে ১৯টি। আর প্রচলিত ব্যাংকিংয়ের পাশাপাশি উইনডো রয়েছে এমন ব্যাংক রয়েছে ৮টি এবং তাদের শাখা রয়েছে ২৫টি।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫