ঢাকা, সোমবার,২১ আগস্ট ২০১৭

মিউজিক

বিচারক মিতালী মুখার্জি

বিনোদন প্রতিবেদক

০৬ মে ২০১৭,শনিবার, ১৭:৩৩


প্রিন্ট

এরই মধ্যে ‘খুদে গানরাজ’-এর অতিথি বিচারক হিসেবে বিচারকাজ সম্পন্ন করেছেন আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন কণ্ঠশিল্পী মিতালী মুখার্জি। গত ৫ মে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ‘খুদে গানরাজ’-এর গ্র্যান্ড ফিনালে অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠান চলাকালীন চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ফরিদুর রেজা সাগর চলতি মাস থেকেই শুরু হওয়া ‘ফিজআপ সেরাকণ্ঠ’র প্রধান চার বিচারকের নাম ঘোষণা করেন।

সেই চারজন হচ্ছেন- রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যা, কুমার বিশ্বজিৎ, সামিনা চৌধুরী ও মিতালী মুখার্জি।

প্রথমবারের মতো সেরাকণ্ঠের অন্যতম প্রধান বিচারক হিসেবে কাজ করার সুযোগ পেয়ে অনেক বেশি আনন্দিত ও উচ্ছ্বসিত মিতালী মুখার্জি। মিতালী মুখার্জি বলেন, ‘আমি সেরাকণ্ঠের প্রধান একজন বিচারক হতে পেরেছি, এটা আমার জন্য সৌভাগ্যের। খুদে গানরাজের বিচারকাজের সময় দেখতে পেলাম ছোট ছোট বাচ্চারা কত চমৎকার গাইছে। চ্যানেল আই'র এই উদ্যোগ সত্যিই প্রশংসনীয়। সবচেয়ে অবাক করা বিষয় হচ্ছে- সাগর ভাই অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগীর একেবারেই প্রাথমিক শুরুর খরচটার কথাও চিন্তা করেন। এটা ভারতবর্ষের রিয়েলিটি শোর ক্ষেত্রে আমি দেখিনি। ব্যবসা করতে আসেন অনেকেই। কিন্তু ব্যবসা করতে এসে সমাজের কথা, সমাজের মানুষের কথা মাথায় রাখা- এটা সাগর ভাইয়ের মধ্যে দেখেছি। বিচারক হিসেবে আমার নাম ঘোষিত হওয়ায় সত্যিই খুবই ভালো লাগছে। এখানকার সবার ভালোবাসায় আমি মুগ্ধ, ভাষাহীন। ’

বাংলাদেশের ময়মনসিংহের মেয়ে মিতালী মুখার্জি। বাংলাদেশেরই গর্ব তিনি। আজ সকালের ফ্লাইটে তিনি মুম্বাইয়ের উদ্দেশে রওনা হবেন। এরই মধ্যে সেরাকণ্ঠের রেজিস্ট্রেশন শুরু হয়েছে। ১৯ মে থেকে বিভাগীয় পর্যায়ে বিচারকার্যক্রম শুরু হবে বলে জানান অনুষ্ঠানটির প্রকল্প পরিচালক ইজাজ খান স্বপন। অনুষ্ঠানের প্রকল্প প্রধান ইবনে হাসান খান। স্বপন জানান, আসছে ঈদের পর থেকে চ্যানেল আইয়ের পর্দায় প্রচার শুরু হবে ‘ফিজআপ সেরাকণ্ঠ’ প্রতিযোগিতার নানান ধাপ। চলতি বছরের আগস্ট মাস থেকে প্রধান চার বিচারক রেজওয়ানা চৌধুরী বন্যা, কুমার বিশ্বজিৎ, সামিনা চৌধুরী ও মিতালী মুখার্জিকে টিভির পর্দায় দেখা যাবে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫