ঢাকা, বুধবার,২৪ মে ২০১৭

ফ্যাশন

নববর্ষে রঙিন সাজ

ফাহমিদা জাবীন

১০ এপ্রিল ২০১৭,সোমবার, ১৮:৪৩


প্রিন্ট

ভোর থেকেই ব্যস্ততার। কারণ সূর্যোদয়ের পর থেকেই শুরু হয়ে যায় উৎসব। নিজের বাসায় হোক অথবা নিমন্ত্রণে বা পরিবার পরিজন নিয়ে ঘোরাঘুরি, বাইরে তো যেতেই হবে। তাই এই সাজ পোশাকেও থাকতে হবে নববর্ষের আমেজ। পয়লা বৈশাখে সাজে সাবেকিয়ানা থাকলেই ভালো মানায়। তাই পোশাক হিসাবে শাড়ি হতে পারে প্রথম পছন্দ। তবে পছন্দমতো যেকোনো পোশাক বেছে নিতে পারেন।
বৈশাখ মানেই গরমকাল। তাই আবহাওয়ার সঙ্গে তাল মিলিয়ে মেকআপ থেকে শুরু করে পোশাক, গয়না, হেয়ার স্টাইল সব কিছুই হতে হবে মানানসই। গরমের কথা মাথায় রেখে পোশাক নির্বাচন করুন। এ সময় সুতি, তাঁত, কোটা জাতীয় কাপড় বেশি মানানসই হবে। খুব বেশি গাঢ় রঙের পোশাক না হলেই ভালো, আপনার জন্য স্বাচ্ছ্যন্দদায়ক হবে। মেকআপ ও হেয়ার স্টাইল হালকা রাখার চেষ্টা করুন।
মেকআপ শুরু করার আগে মুখে বরফ ঘষে নিন। এতে মেকআপ অনেক্ষণ স্থায়ী হবে। তবে যেকোনো ধরনের ত্বকে মেকআপ করার আগে ময়শ্চারাইজার অবশ্যই ব্যবহার করবেন। তৈলাক্ত ত্বকে ফাউন্ডেশন ব্যবহার না করে শুধু মাত্র ফেস পাউডার ব্যবহার করুন। তবে যারা বাইরে যাবেন তারা মেকআপ শুরু করার আগে অবশ্যই সানস্ক্রিন লাগিয়ে নেবেন। শুধু মুখে নয় গলা, কান, হাতেও সানস্ক্রিন লাগিয়ে নিন। কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে ত্বকে ফাউন্ডেশন লাগিয়ে নিন। ওয়াটার বেজড, মুজ বা লিকুইড ফাউন্ডেশন গরমের জন্য ভালো। চেষ্টা করুন বেজ মেকআপ হালকা রাখতে। বেজ মেকআপে বেশি প্রোডাক্ট না ব্যবহার করাই ভালো। এতে মেকআপ গলে যাওয়ার ভয় কম থাকে। বেস মেকআপ হয়ে গেলে আরো একবার বরফ নিয়ে চেপে চেপে পুরো মুখে লাগিয়ে আরো একবার কমপ্যাক্ট পাউডার বুলিয়ে নিন।
ত্বকের রঙের থেকে দুই শেড গাঢ় মভ পিঙ্ক বা ব্রাউন আইশ্যাডো চোখের পাতায় লাগান। সব পোশাকের সাথেই মানাবে। এরপর লাগান কাজল বা আইলাইন। ওয়াটার প্রুফ লাইনার ও মাশকারা ব্যবহার করুন। চিকবোন বরাবর ব্লাশন লাগান। এরপর লিপলাইনার দিয়ে ঠোঁট এঁকে লিপস্টিক লাগিয়ে নিন। ব্লাশন ব্যবহার করুন। ম্যাট লিপস্টিক ব্যবহার করুন দীর্ঘক্ষণ স্থায়ী হবে।
রাতের সাজের সাথে ফলস আইল্যাশ পরতে পারেন। সে ক্ষেত্রে আইল্যাশ লাগিয়ে তার ওপর মাশকারা দিতে হবে। এতে করে সেটা পাপড়ির সাথে লেগে থাকবে। গ্লস, পিঙ্ক, রেড কোরাল রঙের লিপস্টিক বেছে নিন। ব্লাশ ব্যবহার না করে আঙুল দিয়ে ব্রেন্ড করে দিন। এতে ঠোঁটে এক ধরনের ন্যাচারাল শেড আসবে।
সাজে আরো বেশি বাঙালি নারীর ছাপ আনতে নাকে নাকফুল বা নথের বিকল্প নেই। পছন্দমতো একটা পরে নিতে পারেন। হাত ভরে চুড়ি পরুন। কাচ, মেটাল বা প্লাস্টিক যেকোনো ধরনের চুড়ি পরতে পারেন। আজকাল বিভিন্ন ধরনের বালা পাওয়া যায়, সেসব বালা থেকেও বেছে নিতে পারেন আপনার পছন্দের অলঙ্কার।
চুলের সাথে অবশ্যই ফুল রাখুন। বেলী বা রজনীগন্ধার মালা পরুন অথবা দুই তিনটি ভিন্ন রঙের ফুল চুলে আটকে নিন। খোঁপা বা বেণী করতে পারেন দিনের সাজে। যারা চুল খোলা রাখতে চান তারা ব্লো বা আয়রন করার পর স্প্রে অথবা সুন্দর করে কার্ল করিয়ে চুলকে ফিক্সড করে নেবেন।
পারফিউম স্প্রে করুন। প্রয়োজনে হালকা সুগন্ধিও লাগাতে পারেন। সবশেষে অবশ্যই আরামদায়ক জুতা পরবেন। সকালে বা রাতে যখনই বাসায় ফিরবেন অবশ্যই ভালোভাবে মেকআপ তুলে নেবেন। এ ছাড়া হাতব্যাগে ওয়েট টিসু ও রুমাল, হালকা প্রসাধনী রাখতে ভুলবেন না।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন
চেয়ারম্যান, এমসি ও প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

ব্যবস্থাপনা পরিচালক : শিব্বির মাহমুদ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫