ঢাকা, মঙ্গলবার,২৭ জুন ২০১৭

অর্থ-শিল্প-বাণিজ্য

আইএফআইসির রাইট আবেদন ৩১ মে শুরু

লেনদেন বাড়লেও মিশ্র পুঁজিবাজার সূচক

অর্থনৈতিক প্রতিবেদক

২০ মার্চ ২০১৭,সোমবার, ০০:০০


প্রিন্ট

লেনদেনে গতি ফিরলেও সূচকের মিশ্র আচরণের শিকার হয়েছে দেশের পুঁজিবাজার। গতকাল সপ্তাহের প্রথম কার্যদিবসে পুঁজিবাজার আচরণে নেতিবাচক প্রবণতা দেখা যায়। সূচকের উন্নতি দিয়ে লেনদেন শুরু করা দুই বাজার বিক্রয়চাপের মুখে পড়লে শুরু হয় নেতিবাচক প্রবণতা। দিনশেষে দুই বাজার সূচক ছিল মিশ্র। এর আগে টানা চার কার্যদিবসে কম-বেশি উন্নতি ঘটে দুই পুঁজিবাজার সূচকের। এ সময় বাজারগুলোতে লেনদেন হওয়া বেশির ভাগ কোম্পানি দর হারালেও লেনদেনের যথেষ্ট উন্নতি ঘটে।
ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) প্রধান সূচক ডিএসইএক্স গতকাল ৫ দশমিক ৮১ পয়েন্ট হ্রাস পায়। ডিএসই শরিয়াহ সূচক হারায় ৩ দশমিক ২৬ পয়েন্ট। তবে একই সময় ৬ দশমিক ৬৮ পয়েন্ট উন্নতি ঘটে ডিএসই-৩০ সূচকের। চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সার্বিক মূল্যসূচক ও সিএসসিএক্স সূচকের যথাক্রমে ১ দশমিক ৫৩ ও দশমিক ১৩ পয়েন্ট উন্নতি ঘটলেও যথাক্রমে দশমিক ২৫ ও ২ দশমিক ১৬ পয়েন্ট হারায় সিএসই শরিয়াহ।
সূচকের মিশ্র প্রবণতায়ও লেনদেনের উন্নতি ঘটে দুই পুঁজিবাজারে। ঢাকা শেয়ারবাজার গতকাল ১ হাজার ১০৩ কোটি টাকার লেনদেন নিষ্পত্তি করে, যা আগের দিন অপেক্ষা ১৩৯ কোটি টাকা বেশি। গত বৃহস্পúতিবার ডিএসইর লেনদেন ছিল ৯৬৪ কোটি টাকা। চট্টগ্রাম শেয়ারবাজারে ৫৫ কোটি টাকা থেকে ৭২ কোটিতে পৌঁছে লেনদেন।
এ দিকে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি আইএফআইসি ব্যাংকের রাইট শেয়ারের জন্য আবেদন গ্রহণ আগামী ৩১ মে শুরু হবে। আবেদন চলবে আগামী ২৯ জুন পর্যন্ত। ডিএসই সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। কোম্পানিটির রাইট শেয়ারসংক্রান্ত রেকর্ড তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে আগামী ১২ এপ্রিল।
এর আগে গত ১৫ মার্চ বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) কোম্পানিটির রাইট শেয়ার ইস্যুর অনুমোদন দেয়। অনুমোদন পাওয়ায় আইএফআইসি ব্যাংক ১টি শেয়ারের বিপরীতে ১টি রাইট শেয়ার ছাড়তে পারবে। কোম্পানির তথ্য অনুযায়ী, রাইট শেয়ারের অভিহিত মূল্য হবে ১০ টাকা।
জানা গেছে, ১০ টাকা মূল্যে কোম্পানিটি ৫৬ কোটি ৩৮ লাখ ২১ হাজার ৯০৭টি সাধারণ শেয়ার ছেড়ে বাজার থেকে ৫৬৩ কোটি ৮২ লাখ ১৯ হাজার ৭০ টাকা উত্তোলন করবে। বেসরকারি খাতের এ ব্যাংকটি রাইট শেয়ারের মাধ্যমে টাকা উত্তোলন করে কোম্পানির মূলধনের পর্যাপ্ততা এবং ব্যাসেল ৩’ র আলোকে মূলধন ভিত্তি শক্তিশালী করবে। ৩০ জুন, ২০১৬ তারিখে অর্ধবার্ষিকী আর্থিক প্রতিবেদন অনুযায়ী, কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় ১ টাকা ৬১ পয়সা। আর শেয়ারপ্রতি সম্পদমূল্য ২৪ টাকা ৩৮ পয়সা। এই রাইট ইস্যুর জন্য ইস্যু ম্যানেজার হিসেবে কাজ করছে আইসিবি ক্যাপিটাল ম্যানেজমেন্ট লিমিটেড।
গতকাল সকালে সূচকের ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতায় লেনদেন শুরু করে দুই পুঁজিবাজার। ঢাকায় ডিএসইএক্স সূচকের ৫ হাজার ৭০১ দশমিক ২৭ পয়েন্ট থেকে লেনদেন শুরু করে বেলা ১১টার দিকে সূচকটি পৌঁছে যায় ৫ হাজার ৭২০ পয়েন্টে। এর পরই বিক্রয়চাপ শুরু হয়। লেনদেন হওয়া কোম্পানিগুলো একে একে দর হারাতে থাকে। শুরু হয় সূচকের পতন। লেনদেনের বাকি সময় এ পতন অব্যাহত থাকলে বেলা ২টার পর ডিএসই সূচক নেমে আসে ৫ হাজার ৬৯৫ দশমিক ৪৫ পয়েন্টে।
দুই পুঁজিবাজারে বেশির ভাগ খাতেই মিশ্র প্রবণতা দেখা যায়। ব্যাংক, বীমা, নন ব্যাংক আর্থিক প্রতিষ্ঠান, টেক্সটাইল ও রসায়ন খাতে এ প্রবণতা দেখা যায়। অন্য দিকে প্রকৌশল, জ্বালানি, তথ্যপ্রযুক্তি, সিমেন্ট, চামড়া, সেবা ও বিবিধ খাতে দরপতনের শিকার হয় বেশির ভাগ কোম্পানি। ঢাকায় লেনদেন হওয়া ৩৩০টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের মধ্যে ১৩৩টির মূল্যবৃদ্ধির বিপরীতে দর হারায় ১৬৪টি। অপরিবর্তিত ছিল ৩৩টির দর। অন্য দিকে চট্টগ্রামে লেনদেন হওয়া ২৫৩টি সিকিউরিটিজের মধ্যে ৯২টির দাম বাড়ে, ১৩১টির কমে ও ৩০টির দাম অপরিবর্তিত থাকে।
ঢাকায় গতকাল লেনদেনের শীর্ষে উঠে আসে ব্যাংকবহির্ভূত আর্থিক প্রতিষ্ঠান লঙ্কাবাংলা ফিন্যান্স। ৩৭ কোটি ১৪ লাখ টাকায় কোম্পানিটির ৬১ লাখ শেয়ার হাতবদল হয়। ৩২ কোটি ৬৭ লাখ টাকায় ৩০ লাখ ৮২ হাজার শেয়ার লেনদেন করে দিনের দ্বিতীয় কোম্পানি ছিল বেক্সিমকো ফার্মা। ডিএসইর লেনদেনের শীর্ষ ১০ কোম্পানির অন্যগুলো ছিল যথাক্রমে আরএসআরএম স্টিলস, এনবিএল, সিটি ব্যাংক, বাংলাােদশ বিল্ডিং সিস্টেমস, বেক্সিমকো লি., এসিআই ফরমুলেশন, আইএফআইসি ব্যাংক ও ইসলামিক ফিন্যান্স।
দিনের মূল্যবৃদ্ধির শীর্ষে ছিল আইসিবি এনআরবি ফার্স্ট মিউচুয়াল ফান্ড। ৯ দশমিক ৬৩ শতাংশ মূল্যবৃদ্ধি ঘটে বিএসইসির কাছ থেকে অবসায়নের সিদ্ধান্ত পাওয়া আইসিবির এ ফান্ডটির। উল্লেখযোগ্য মূল্যবৃদ্ধি পাওয়া অন্যান্য কোম্পানির মধ্যে প্রিমিয়ার লিজিং ৯.৫৫, ইন্টারন্যাশনাল লিজিং অ্যান্ড ফিন্যান্স ৬.৭৯, প্রগতি ইন্স্যুরেন্স ৫.৬৮, সাইফ পাওয়ার ৪.৩৯ ও এসিআই ফরমুলেশনের ৪.৩৪ শতাংশ মূল্যবৃদ্ধি ঘটে।
অন্য দিকে দিনের সর্বোচ্চ দরপতন ঘটে মার্কেন্টাইল ব্যাংকের। লভ্যাংশ ঘোষণার পর রেকর্ড-পরবর্তী মূল্য সমন্বয়ে ১৩ দশমিক ১৯ শতাংশ দর হারায় কোম্পানিটি। এ ছাড়া রিলায়েন্স ইন্স্যুরেন্স ১১.৭৭, জুট স্পিনার্স ৭.৪০, মার্কেন্টাইল ইন্স্যুরেন্স ৪.৭৩ ও উত্তরা ফিন্যান্স ৪.৬১ শতাংশ দর হারায়।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫