ঢাকা, সোমবার,২৪ জুলাই ২০১৭

সংগঠন

ইলিশ মাছ ধরা বন্ধ মৌসুম

‘সরকারি বরাদ্দ জেলেদের হাতে পৌঁছায় না’

নিজস্ব প্রতিবেদক

১৮ মার্চ ২০১৭,শনিবার, ১৫:৪৯


প্রিন্ট
ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

ইলিশ মাছ ধরার সাথে যুক্ত নয় এমন লোকেদের জেলে নিবন্ধন বাতিলের দাবি করেছেন অধিকারভিত্তিক ২৭টি সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। তারা বলেন, ইলিশ মাছ ধরা বন্ধ থাকার সময়ে পরিবারের জন্য সরকারি বরাদ্দ অনেক জেলের হাতেই পৌঁছায় না।

আজ শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এক মানববন্ধনে এ অভিযোগ করা হয়। ‘প্রকৃত জেলে নয় এমন লোকদের জেলে নিবন্ধন বাতিল করতে হবে: মাছ ধরার নিষেধাজ্ঞা কার্যকর হওয়ার কমপক্ষে সাতদিন আগেই প্রকৃত জেলেদেরকে চাল বা টাকা দিতে হবে’ শীর্ষক এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনটি যৌথভাবে আয়োজন করে অনলাইন নলেজ সোসাইটি, অর্পণ, উদ্দীপন, উদয়ন বাংলাদেশ, উন্নয়ন ধারা ট্রাস্ট, এসডিও, কোস্ট ট্রাস্ট, জাতীয় কৃষাণী শ্রমিক সমিতি, জাতীয় শ্রমিক জোট, ডাক দিয়ে যাই, ডোক্যাপ, দ্বীপ উন্নয়ন সংস্থা, নলসিটি মডেল সোসাইটি, পিরোজপুর গণ উন্নয়ন সমিতি, প্রান্তজন, পিএসআই, বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশন, বাংলাদেশ কৃষক ফেডারেশন (জাই), বাংলাদেশ ভূমিহীন সমিতি, বাংলাদেশ কৃষি ফার্ম শ্রমিক ফেডারেশন, লেবার রিসোর্স সেন্টার, মুক্তির ডাক, সংকল্প ট্রাস্ট, সংগ্রাম, সিডিপি, বাংলাদেশ মৎস্যশ্রমিক জোট, হাওর কৃষক ও মৎস্য শ্রমিক জোট।

এতে বলা হয় মাছ ধরা বন্ধ থাকার সময় সরকার প্রত্যেক জেলে পরিবারকে ৪০ কেজি করে চাল দেয়ার কথা। কিন্তু সে চাল এখন পর্যন্ত অনেক জেলেদের হাতেই পৌঁছায়নি। মাছ ধরা বন্ধ থাকার সময় জেলেদের অন্য কোনো বিকল্প উপায় না থাকার কারণে জেলেরা অধিকাংশ সময়েই জীবিকার নানাবিধ সুবিধা থেকে বঞ্চিত হয় এবং প্রায়শঃই ন্যায়বিচার এবং সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনি কর্মকা-ের সুবিধা ভোগ করতে পারে না।

তারা বলেন, জিডিপির ১% অর্জন হয় ইলিশ মাছ থেকে। তাই সরকারের উচিত এসব জেলেদের দিকে নজর দেয়া। প্রকৃত জেলে নয় এমন লোকদের জেলে নিবন্ধন বাতিল করে প্রকৃত জেলেদেরকে নিবন্ধনের আওতায় নিয়ে আসার দাবি জানিয়ে অধিকারভিত্তিক ২৭টি কৃষক, জেলে এবং শ্রমিক সংগঠন।

তারা মাছ ধরার নিষেধাজ্ঞা আরোপের সাতদিন আগেই চাল বা টাকা সংশ্লিষ্ট জেলেদের মধ্যে বিতরণের দাবি জানান। তারা চাল বন্টন প্রক্রিয়ায় জেলেদের প্রতিনিধিদের যুক্ত করা এবং প্রভাবশালীদের হাত থেকে এ বণ্টন ব্যবস্থা বন্ধ করার দাবি জানান।

এছাড়া জেলেদের জন্য ১০ টাকায় ব্যাংক হিসাব খোলা এবং চালের সমপরিমাণ টাকা ব্যাংক হিসাবের মাধ্যমে বিতরণ করা বা টাকা মোবাইলের মাধ্যমে বিতরণের দাবি করেন তারা। কৃষিঋণের মতো স্বল্প সুদে জেলে ঋণের ব্যবস্থা ও বয়স্ক ও বিধবা ভাতার জন্য জেলেদের বিশেষ কোটা রাখারও দাবি জানান তারা।

কোস্ট ট্রাস্টের মোস্তফা কামাল আকন্দের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত মানববন্ধন ও সমাবেশে বক্তব্য রাখেন কোস্ট ট্রাস্টের সনত কুমার ভৌমিক, অর্পনের কাদের হাজারী, বাংলাদেশ ভূমিহীন সমিতির সুবল সরকার, মুক্তির ডাকের আসিফ ইকবাল, বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশনের ড. মেজবাহ, বাংলাদেশ কৃষক ফেডারেশনের জায়েদ ইকবাল খান, লেবার রিসোর্স সেন্টারের শিবলী আনোয়ার এবং হাওর কৃষক ও মৎস্য শ্রমিক জোটের অনুপম মাহমুদ।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫