ঢাকা, শুক্রবার,২৪ মার্চ ২০১৭

রাজশাহী

নাটোরে কলেজশিক্ষককে গুলি করে হত্যা

স্কুলশিক্ষকের আত্মহত্যাসহ চারটি অস্বাভাবিক মৃত্যু

নাটোর সংবাদদাতা

১২ জানুয়ারি ২০১৭,বৃহস্পতিবার, ১৬:৩৬ | আপডেট: ১২ জানুয়ারি ২০১৭,বৃহস্পতিবার, ১৬:৪৯


প্রিন্ট

নাটোরের লালপুরে আজ বৃহস্পতিবার এক কলেজ শিক্ষককে গুলি করে হত্যা এবং শহরের স্টেশন এলাকায় সরকারি হাইস্কুলের সহকারী শিক্ষকের ট্রেনের নিচে ঝাঁপিয়ে পড়ে আত্মহত্যাসহ দুর্ঘটনায় চারটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, জেলার লালপুর উপজেলার মোহরকয়া ডিগ্রি কলেজের বাংলা বিভাগের প্রভাষক মোশারফ হোসেনকে (৪০) গুলি করে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুর ১টার দিকে লালপুর-বাঘা সড়কের সীমান্তবর্তী বাদলিবাড়িতে (তিনখুটি) এলাকায় এই হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটে। নিহত মোশারফ হোসেন রাজশাহীর বাঘা উপজেলার পীরগাছা গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে।

ঘটনার সময় তিনি মোটর সাইকেলে করে নিজ গ্রাম রাজশাহীর বাঘা উপজেলার পীরগাছায় ফিরছিলেন। ঘটনাস্থলে পৌঁছালে দুর্বৃত্তরা তাকে লক্ষ্য করে পরপর কয়েক রাউন্ড গুলি করে। গুলিবিদ্ধ হয়ে তিনি মাটিতে লুটিয়ে পড়লে দুর্বৃত্তরা তার মোটর সাইকেল নিয়ে পালিয়ে যায়। পরে আশংকাজনক অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে স্থানীয়রা রাজশাহীর বাঘা উপজেলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

লালপুর থানার ওসি আবু ওবায়েদ বলেছেন, হত্যার কারণ এখনও জানা যায়নি। তবে মোটরসাইকেল ছিনতাইয়ের উদ্দেশ্যে তাকে গুলি করা হয়ে থাকতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

অপরদিকে নাটোর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক ও সিংড়া দমদমা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক শহরের পিটিআই এলাকার বাসিন্দা গোপাল চন্দ্র সাহা (৫০) আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজশাহী গামী উত্তরা এক্সপ্রেস ট্রেনের নিচে ঝাঁপিয়ে পড়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে জানা গেছে। 

নাটোর রেল স্টেশনের মাস্টার জমসেদ আলী জানান, ট্রেনটি এক নম্বর প্লাটফরম থেকে রাজশাহীর উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়ার সময় ঐ শিক্ষক কাটা পড়েন।

দুই সন্তানের জনক গোপাল চন্দ্র সাহা নাটোর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ভুগোলের শিক্ষক হিসেবে খুবই জনপ্রিয় ছিলেন।

সিংড়া দমদমা বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক জাকারিয়া মাসুদ জানান, গত দেড় বছর ধরে দমদমা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে কর্মরত ছিলো গোপাল চন্দ্র সাহা। সম্প্রতি অসুস্থতার কারণে তিনি ছুটিতে ছিলেন। আজ বৃহস্পতিবার সকালে ছুটি বাড়িয়ে নেওয়ার জন্য তার স্ত্রী স্কুলে ফোন করে ছুটি নেন। কিন্তু কিছুক্ষণ পরেই তার স্কুলে তার মারা যাওয়ার খবর আসে। তার আত্মহত্যার তাৎক্ষণিক কোনো কারণ জানা যায়নি।

এদিকে জেলার নলডাঙ্গার মাধনগর মহিষমারী ব্রিজ এলাকায় রাতের কোনো এক সময় ট্রেনে কাটা পড়ে অজ্ঞাত (৪৫) এক ব্যক্তি নিহত হন এবং লালপুরের কদিমচিলান এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় অপর একজনের মৃত্যু হয়েছে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন
চেয়ারম্যান, এমসি ও প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

ব্যবস্থাপনা পরিচালক : শিব্বির মাহমুদ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫