ঢাকা, শুক্রবার,২৩ জুন ২০১৭

শেষের পাতা

হেলথ টিপস : রেড মিট স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর

১১ জানুয়ারি ২০১৭,বুধবার, ০০:০০


প্রিন্ট

গরু, ভেড়া, ছাগল প্রভৃতি স্তন্যপায়ী প্রাণীদের গোশতকে রেড মিট বা লাল গোশত বলা হয়। এগুলো দেহের বিভিন্ন ধরনের ক্ষতি করে।
সম্প্রতি গবেষকেরা জানিয়েছেন, লাল গোশত নিয়মিত খেলে পেটের একটি বিশেষ সমস্যা হয়। হিন্দুস্তান টাইমস এই খবর জানায়।
যারা নিয়মিত লাল গোশত খান তাদের সতর্ক হওয়া উচিত। কারণ নিয়মিত লাল গোশত খেলে পেটে বিশেষ সমস্যা হয়। এ সমস্যাটির পেছনে সি রিঅ্যাকটিভ প্রোটিনের ভূমিকা রয়েছে বলে জানিয়েছেন গবেষকেরা। একে ইনফ্লেমেটরি কেমিক্যাল বলছেন গবেষকেরা।
এ ছাড়া লাল গোশতের আরো কিছু অপকারিতা আছে। এর মধ্যে রয়েছে লাল গোশত টিনিয়া সেলিনাস নামক এক ধরনের প্যারাসাইট থাকে যা অন্ত্র, পাকস্থলী, যকৃত প্রভৃতি জায়গায় প্রবেশ করে আমাদের অসুস্থ করে দেয়। লাল গোশতে থাকে অধিক ট্রাইসেরাইড, কোলেস্টেরল ও পিউরিন তাই হৃদরোগ, বাত, উচ্চরক্ত চাপের রোগীদের লাল গোশত কম খাওয়া উচিত।
এ ছাড়া অতিরিক্ত লাল গোশত গ্রহণ করলে খাদ্যনালী, ফুসফুস, অগ্ন্যাশয়, পাকস্থলী ও স্তন ক্যান্সারের ঝুঁকি বেড়ে যায়। এতে প্রচুর পরিমাণে সম্পৃক্ত চর্বি থাকায় হৃদরোগের ঝুঁকি বাড়ায়।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, লাল গোশত রক্তে কোলেস্টেরলের পরিমাণ ও শরীরের ওজন বাড়ায় এবং স্থূলতা জন্ম দেয়। নিয়মিত লাল গোশত খেলে উচ্চ রক্তচাপ এবং বাত রোগ বাড়ে। আর অতিরিক্ত লাল গোশত খেলে রক্তনালীর পুরুত্ব বেড়ে যায়, ফলে একিউট করোনারি সিনড্রোম এবং স্ট্রোকের ঝুঁকি বাড়ে। তাহলে প্রোটিনের জন্য কি খাবেন? বিশেষজ্ঞরা বলছেন, মাছ কিংবা মুরগির গোশত খেতে পারেন। আর এতে ২০ শতাংশ ঝুঁকি কমবে।
গবেষণা দলটি এ বিষয়টি অনুসন্ধানের জন্য ৪০ থেকে ৭৫ বছর বয়সী ৪৬ হাজার ৫০০ পুরুষের ওপর অনুসন্ধান চালান। মূলত ১৯৮৬ থেকে ২০১২ সালের মধ্যে তাদের স্বাস্থ্যগত তথ্য বিশ্লেষণ করা হয়। এতে তাদের খাবারের অভ্যাস ও বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হওয়ার হারও অনুসন্ধান করা হয়। ইন্টারনেট।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫