ই ন্দো নে শি য়া র রূ প ক থা

রাজকন্যে ও কালো বানর

রূপান্তর : হাসান হাফিজ

(গতদিনের পর)
বোনকে দেখে সে হতবাক। সে ভালো হয়ে গেছে। পুরোপুরি ভালো। সর্বনাশ! সারি তো ভালো হয়ে গেছে। সম্পূর্ণ সেরে গেছে তার বিশ্রী চর্মরোগ। এখন তো সে সিংহাসন দাবি করে বসবে। হাতছাড়া হয়ে যাবে তার কর্তৃত্ব, দাপট ও অসীম ক্ষমতা। তাকে ঠেকানোর কী উপায়? মহাচিন্তিত পূর্বা রারাং ভাবছে, সে কথাই। কোনো ছলে-কৌশলে ওকে হটাতে হবে। দূরে রাখতে হবে সিংহাসনের কাছ থেকে। সে তার বোনকে জিজ্ঞেস করল,
এসো, আমরা দু’জনের চুল মেপে দেখি। যার চুল বড়, সে হবে বিজয়িনী। তুমি এই প্রস্তাবে রাজি আছো?
বেশ তো রাজি।
মাপজোঁক করে দেখা গেল পূর্বা সারির চুলই বড়। সুতরাং এই দফায় বিজয়িনী হলো নির্বাসিত রাজকন্যে সারি। পূর্বা রারাং হার মানার পাত্রী নয়। দাঁতে দাঁত চেপে মেনে নিলো। ভেতরে ভেতরে রাগ হচ্ছে প্রচণ্ড। বাইরে সেটা প্রকাশ করছে না। করা যে বোকামি, সে ভালো করেই জানে। মনে মনে রারাং অনড়। এত সহজে হাল ছেড়ে দেবে না সে। (চলবে)

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.