ই ন্দো নে শি য়া র রূ প ক থা : রাজকন্যে ও কালো বানর

রূপান্তর : হাসান হাফিজ

(গতদিনের পর)
পরের দিন সকালবেলা। যথানিয়মে সে গেছে পূর্বা সারির দেখভাল করতে। লুটুং পূর্বা সারিকে বলল তার সঙ্গে আসতে। পূর্বা এলো। লুটুং তাকে নিয়ে এলো নতুন সৃষ্টি হওয়া সেই হ্রদের পাড়ে। পূর্বাকে বলল এই হ্রদে গোসল সেরে নিতে। পূর্বা তাই করে। ওমা, কী অবাক কাণ্ড। গোসল করার পরপরই পূর্বার রোগবালাই সম্পূর্ণ দূর হয়ে গেল। আগেকার রূপলাবণ্য, শ্রী-সৌন্দর্য ফিরে পেল সে। এ কী অলৌকিক ব্যাপার! চোখের পলকে এ আজব ঘটনা ঘটে গেল। এও কি সম্ভব? পূর্বা হতভম্ব। যা ঘটেছে তা অলৌকিক। বিশ্বাস করা যাচ্ছে না যেন। সে সৃষ্টিকর্তার দরবারে অশেষ কৃতজ্ঞতা জানিয়ে প্রার্থনা করল।
ওদিকে পূর্বা রারাংয়ের কী অবস্থা? সে তো মনের সুখে রাজ্য শাসন করছে। কোনো বাধা নেই। প্রতিদ্বন্দ্বী বলেও কেউ নেই। ঝুটঝামেলা বলতে কিচ্ছু নেই। হঠাৎই একদিন তার মনে হলো, বনে গিয়ে বোনটাকে দেখে আসি তো। কেমন আছে সে! সৈন্যসামন্ত নিয়ে সে বনে গেল।
(চলবে)

 

সম্পাদকঃ আলমগীর মহিউদ্দিন,
প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ
১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

Copyright 2015. All rights reserved.