১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

জাবিতে দুর্নীতিবিরোধী মিছিল, অবরোধের ডাক

শিক্ষক-কর্মকর্তাদের প্রতিবাদ
-

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) দুর্নীতির বিরুদ্ধে মিছিল করেছে শিক্ষার্থীরা। সেই সাথে ডাক দেয়া হয়েছে প্রশাসনিক ভবন অবরোধের।

আজ সোমবার দুপুর একটার দিকে ‘দুর্নীতির বিরুদ্ধে জাহাঙ্গীরনগর’ ব্যানারে একটি বিক্ষোভ মিছিল সমাজ বিজ্ঞান থেকে শুরু হয়ে কলা অনুষদ ভবন প্রদক্ষিণ করে পুরাতন রেজিস্ট্রারে গিয়ে শেষ হয়। এসময় স্লোগানে স্লোগানে মঙ্গলবার সারাদিন প্রশাসনিক ভবন অবরোধের ডাক দেয়া হয়। বিক্ষোভ শেষে পুরাতন রেজিস্ট্রারের সামনে এক সংক্ষিপ্ত বক্তৃতায় আন্দোলনকারীরা তিনদফা দাবিতে আগামীকাল মঙ্গলবার প্রশাসনিক ভবন অবরোধের ঘোষণা দেয়।

দফাগুলো হলো- রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর হলের পাশের তিনটা হল স্থানান্তর করে নতুন জায়গায় দ্রুত কাজ শুরু করতে হবে। মেগাপ্রজেক্টের দুই কোটি টাকা দুর্নীতি করে ছাত্রলীগকে দেয়ার ব্যাপারে বিচার বিভাগীয় তদন্ত নিশ্চিত করতে হবে। টেন্ডারের সিডিউল ছিনতাইকারীদের চিহ্নিত করে শাস্তির আওতায় আনতে হবে এবং কাজ স্থগিত রেখে সকল স্টেক হোল্ডারদের সাথে আলোচনার ভিত্তিতে মাস্টারপ্লান পুনর্বিন্যস্ত করতে হবে।

এসময় দুর্নীতি বিরোধী আন্দোলনের অন্যতম সংগঠন ও সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি আশিকুর রহমান বলেন, ‘আমরা অপরিকল্পিত ভবনের প্রতিবাদ করলে বলা হয় ওরা উন্নয়ন বিরোধী, দুর্নীতির কথা বললে প্রশাসন থেকে বলা হয় ওরা উন্নয়নবিরোধী কুচক্রী মহল। কিন্তু তারা একবারও আমাদের দাবিগুলো খ-ন করার সাহস করেন না। এখন প্রশাসন নিজের স্বচ্ছতা প্রমাণ করতে হলে বিচারবিভাগীয় তদন্ত করে দেখানো হোক তারা স্বচ্ছ ছিলেন, স্বচ্ছ আছেন।

ছাত্রফ্রন্টের সাংগঠনিক সম্পাদ শোভন রহমান বলেন, ‘জাবি প্রশাসন থেকে বলা হচ্ছে দুর্নীতির প্রমাণ দেয়া হোক। আমরা বলতে চাই, যেখানে বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্বোচ্চ কর্তৃপক্ষ ভিসি দুর্নীতির সাথে জড়িত সেখানে আমরা প্রমাণ কার কাছে উপস্থাপন করবো? নিরপেক্ষ বিচার বিভাগীয় তদন্ত করা হলো তখন প্রমাণ দেয়া যাবে।’

এদিকে দুর্নীতির অভিযোগকে মিথ্যাচার হিসেবে আখ্যায়িত করে প্রশাসনের পক্ষে দুপুর সাড়ে বারোটায় শহীদ মিনার এলাকায় মানববন্ধন করেছে বঙ্গবন্ধু শিক্ষক পরিষদ। এসময় ভিসিপন্থী শিক্ষকরা আন্দোলন বাদ দিয়ে আলোচনা করা এবং উন্নয়ন কাজ বাদা প্রদান না করতে বলেন। একই সময় পুরাতন রেজিস্ট্রারের সামনে দুর্নীতির অভিযোগকে মিথ্যাচার ও উন্নয়ন বিরোধিতা দাবি করে পৃথক মানববন্ধন করেছে ভিসিপন্থী ‘কর্মকতা-কর্মচারী ঐক্য পরিষদ।’


আরো সংবাদ