১৪ ডিসেম্বর ২০১৯

বাস্তবতাটা মেনেই মাঠে নামতে চান মুমিনুল

মুমিনুল হক - ছবি : এএফপি

ভারতের মাটিতে তাদের বিরুদ্ধে টেস্ট খেলতে নামার আগে দুই দলের তফাৎটা মাথায় রেখেই এগোতে চান বলে জানিয়েছেন টাইগার অধিনায়ক মুমিনুল হক। বলেছেন, ইন্দোরের হলকার স্টেডিয়ামে বৃহস্পতিবার স্বাগতিক ভারতের বিপক্ষে শুরু হতে যাওয়া প্রথম টেস্টে চাপ মুক্ত মানসিকতা নিয়েই মাঠে নামবে টাইগাররা। শক্তিশালী ভারতের বিপক্ষে কেউ বাংলাদেশের জয় প্রত্যাশা করছে না। তাই দলের উপর বাড়তি কোন চাপও থাকছে না বলে মন্তব্য করেছেন মুমিনুল।

বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান নিষিদ্ধ হওয়ায় এই সিরিজের নেতৃত্ব পাওয়া মোমিনুলের মতে ভারতের বিপক্ষে টেস্ট খেলতে পারাটাই বাংলাদেশের জন্য বড় অনুপ্রেরণা। একই সঙ্গে ম্যাচ জয়ের কোন বাড়তি চাপও থাকছে না টাইগারদের উপর। ফলে ক্রিকেটাররা ম্যাচটি উপভোগ করতে পারবে দারুণভাবে।

মুমিনুল বলেন, ‘যখন ম্যাচ জয়ের প্রত্যাশা থাকে তখন দলের উপর বাড়তি চাপ পড়ে। আমি মনে করি এই ম্যাচটি আমরা উপভোগ করব। কারণ কেউ আশা করছে না ভারতের বিপক্ষে আমরা জয়ী হবো। তবে এর মানে এই নয় যে আমরা জয় পাবার চেষ্টা করব না।’

বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, ‘এর মানে এই নয় যে আমরা জয় পাবার জন্য কঠোর পরিশ্রম করব না। আমার বক্তব্য হচ্ছে এখানে আমরা চাপ মুক্ত হয়ে খেলতে পারব। ফলে আমরা আমাদের খেলাটিকে উপভোগ করতে পারব। তবে এটি নিশ্চিত যে জয়ের লক্ষ্য নিয়েই আমরা মাঠে নামব।’

সম্প্রতি তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজে সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকাকে হোয়াইটওয়াশ করেছে ভারত। তার মধ্যে শেষ দু’টিতে প্রোটিয়াদের হারিয়েছে ইনিংস ব্যবধানে। প্রথম টেস্টটিও ছিল একপেশে। ওই ম্যাচেও ইচ্ছে করলে সফরকারীদের ফলো অনে ফেলতে পারতো স্বাগতিকরা। সিরিজে বোলাররা ছিলেন অত্যন্ত আগ্রাসী।

সিরিজে দক্ষিণ আফ্রিকা স্বাগতিক দলের ২৫ উইকেট শিকার করতে সক্ষম হয়েছে পক্ষান্তরে ভারত তুলে নিয়েছে প্রেটিয়াদের ৬০ উইকেটের সবক’টি।

ভারতীয় ব্যাটসম্যানরাও ছিল দারুণ ফর্মে। ধারাবাহিক ব্যাটিং দিয়ে প্রতি ম্যাচেই তারা সংগ্রহ করেছে পাঁচ শতাধিক রান।
এসব তথ্য সম্পর্কে বেশ ভালভাবেই অবগত আছেন মোমিনুল। তবে এসব বিষয় নিয়ে চিন্তা না করে মুমিনুল বলেন, তারা সবাই এখানে ক্রিকেট উপভোগ করতে এসেছেন।

তাই ভারতের সাথে ম্যাচে মাঠে নামার আগে বাস্তবতাটা ঠিকই বুঝতে পারছেন তিনি। বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, ‘ভারতে খেলাটা আমাদের জন্য দারুণ সুযোগ। খেলোয়াড়রা এখানে খেলার ব্যাপারে অনেক আগে থেকেই রোমঞ্চিত হয়ে আছে। এ জন্য প্রয়োজনীয় প্রস্তুতিও নিয়ে রেখেছে। আমি জানি তারা কতটা শক্তিশালী। ব্যাটিং লাইন যেমন শক্তিশালী তেমনি বোলিং বিভাগও। আমরা চাই নিজেদের দায়িত্বটাই সঠিকভাবে পালন করতে। আমরা এমন ক্রিকেট খেলতে চাই যাতে ভারতকে কঠিন অবস্থায় পড়তে হয়।’

কোন অনুশীলন ছাড়াই প্রথম টেস্টে খেলতে নামছে বাংলাদেশ। তবে দ্বিতীয় টেস্টে তাদের খেলতে হবে ফ্লাড লাইটের আলোতে গোলাপী বলে। যেটি এখনো তাদের কাছে অস্পস্ট। বাংলাদেশ কখনো গোলাপী বলে খেলেনি।

তবে অনুশীলনের ঘাটতি নিয়েও খুব একটা চিন্তিত নন মুমিনুল। বলেন, সবাই কম-বেশি ক্রিকেটের মধ্যেই ছিলেন। টাইগার নেতা বলেন, ‘টেস্ট দলে সদ্য যোগ দেয়া আট ক্রিকেটারের সবাই জাতীয় ক্রিকেট লীগ (এনসিএল) খেলে এসেছেন। সর্বশেষ ৫ মাসে আমি অন্তত ১০টি প্রথম শ্রেণির মাচে অংশ নিয়েছি। ভারত আসার আগে মুশফিকুর রহিম, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদও এনসিএলে খেলেছেন। সুতরাং আমার মনে হয় আমাদের পর্যাপ্ত প্রস্তুতি রয়েছে।’


আরো সংবাদ

দুই মন্ত্রীর ভারত সফর বাতিল নিয়ে আনন্দবাজার পত্রিকার বিশ্লেষণ (১২৩৬৫)দৃশ্যমান হচ্ছে বিশ্বের সর্ববৃহৎ ক্রিকেট স্টেডিয়ামের (১১৭৫৭)আসাম রণক্ষেত্র, নিহত ৫, আক্রান্ত নেতা-মন্ত্রীর বাড়ি (১১৪২২)গৌহাটিতে বাংলাদেশ হাইকমিশনের গাড়িবহরে হামলা (১০২৯৩)সানিয়ার বোনকে বিয়ে করলেন আজহারের ছেলে (১০২০৩)ভারত সফর বাতিল করেছেন জাপানের প্রধানমন্ত্রী! (৯৮০৯)বিজিবির হাতে আটক হওয়ার পর যা বললেন ভারতের নাগরিক ক্ষিতিশ (৮১১৯)দৈনিক সংগ্রাম কার্যালয়ে হামলা, সম্পাদক পুলিশ হেফাজতে (৭৭৫৩)পররাষ্ট্রমন্ত্রীর পর স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ভারত সফরও বাতিল (৭১৬৬)ব্যতিক্রমী সেঞ্চুরি করলেন বুমবুম আফ্রিদি (৭০২১)



hacklink Paykwik Paykasa
Paykwik