২০ আগস্ট ২০১৯

লাহোর ও করাচিতে হবে পাকিস্তান-শ্রীলঙ্কা টেস্ট সিরিজ

আইসিসি ফিউচার ট্যুর প্ল্যানের (এফটিপি) অধীনে আগামী চার বছরে অনুষ্ঠিত হবে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ। প্রতিটি দল এর মধ্যে হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিকে পরস্পরের মোকাবেলা করবে অন্তত দুই টেস্টের সিরিজে। সে হিসেবে চলতি বছরের শেষ দিকেই ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ আয়োজন করার কথা পাকিস্তানের।

সাধারণ হিসেবে পাকিস্তানের টেস্ট সিরিজের হোম ভেন্যু হচ্ছে আরব আমিরাত। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আগামী অক্টোবরে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজও সেখানেই অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা।

কিন্তু পিসিবি চাচ্ছে, শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এই দুই ম্যাচের সিরিজটি অনুষ্ঠিত হোক পাকিস্তানেই। করাচী এবং লাহোরে এই দুই টেস্ট আয়োজনের জন্য পুরোপুরি প্রস্তুত পাকিস্তান। এখন শুধু শ্রীলঙ্কা রাজি হলেই হয়। ইএসপিএন ক্রিকইনফো জানিয়েছে এই খবর।

লঙ্কানদের আনুষ্ঠানিকভাবে প্রস্তাবও দিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। এমনকি পিসিবির সেই প্রস্তাব আবার নকচও করে দেয়নি লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। অর্থ্যাৎ শ্রীলঙ্কার পাকিস্তানের ঘরের মাঠে গিয়ে টেস্ট খেলতে মোটামুটি রাজি। তবে, তার আগে তারা পাকিস্তানের নিরাপত্তা ব্যবস্থা পর্যবেক্ষণ করতে চায়। সে লক্ষ্যে লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড একটি উচ্চ পর্যায়ের সিকিউরিটি টিমও পাঠাতে যাচ্ছে পাকিস্তানে।

শ্রীলঙ্কা যদি রাজি হয়, তাহলে এটাই হবে ২০০৯ সালে লাহোরে লঙ্কান ক্রিকেটারদের ওপর হামলার পর পাকিস্তানের মাটিতে এই প্রথম কোনো টেস্ট সিরিজ। ২০০৯ সালে ওই ঘটনায় ৮জন নিহত হন। তবে সে তালিকায় কোনো লঙ্কান ক্রিকেটার ছিলো না। কয়েকজন লঙ্কান ক্রিকেটার শুধু আহত হয়েছিলেন।

ওই হামলার পর পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট বন্ধ হয়ে যায়। বিদেশি দলগুলো কোনোভাবেই সেখানে সফর করতে রাজি নয়। ২০১৫ সালে প্রথম জিম্বাবুয়ে পাকিস্তান সফর করে আসে। ওই সময় লাহোরের গাদ্দাফি স্টেডিয়ামের ৮০০ গজ দুরেই বিশাল বিস্ফোরণ ঘটে। তবুও জিম্বাবুয়ে সফর শেষ করে এবং সিরিজের পরও দুই দিন সেখানে অবস্থান করে। তবুও সেখানকার অবস্থার কোনো পরিবর্তন হয়নি।

এরপর ২০১৭ সালে পিসিএলের ফাইনাল, বিশ্ব একাদশের ৩ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ, শ্রীলঙ্কার এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের টি-টোয়েন্টি খেলে আসা সহ পিসিবির পাকিস্তানে ক্রিকেট ফেরানোর প্রাণান্তকর চেষ্টার কোনো কমতি ছিল না। শেষ পর্যন্ত শ্রীলঙ্কাকে নিয়ে টেস্ট সিরিজ আয়োজন করতে পারলে তারা অনেকটাই সফল হয়ে যাবে।

পিসিবি নিশ্চিত করেছে, তাদের দেশের মাটিতে লঙ্কানদের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজ আয়োজনের জন্য দুই বোর্ডের মধ্যে আলাপ আলোচনা চলছে। শুধু তাই নয়, লন্ডনে সদ্য সমাপ্ত আইসিসি জেনারেল মিটিংয়েও এ বিষয়ে দুই বোর্ডের মধ্যে ব্যাপক আলোচনা হয়েছে। এসিসির সিঙ্গাপুরের মিটিংয়েও নাকি দুই বোর্ডের মধ্যে আলাপ-আলোচনা হয়েছে।


আরো সংবাদ




bedava internet