২০ জুন ২০১৯

সবার ওপরে সাকিব - আমির

সাকিব আল হাসান ও মোহাম্মাদ আমির - ছবি : সংগৃহীত

বিশ্বকাপের ১৭টি ম্যাচ হয়েছে এখন পর্যন্ত। কোন দল ৪টি, কেউ বা ৩টি করে ম্যাচ খেলেছে। তবে এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের স্থানটি দখল করে রেখেছেন টাইগার অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান।

৩ ইনিংস ব্যাটিং করে সাকিব আল হাসান রান করেছেন ২৬০। তিন ইনিংসের প্রথম দুটিতে হাফ সেঞ্চুরি, আর শেষটিতে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে পেয়েছেন দারুণ এক সেঞ্চুরি। যদিও সাকিবের সেঞ্চুরির ম্যাচে হেরে গেছে বাংলাদেশ। সব মিলে চার খেলায় বাংলাদেশের জয় একটিতে, আর বৃষ্টিতে এক ম্যাচ পরিত্যাক্ত হওয়ায় মোট পয়েন্ট চার।

তিন ইনিংসে সাকিব আল হাসানের রান যথাক্রমে ৭৫, ৬৪ ও ১২১। প্রথম ম্যাচে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে মুশফিকুর রহীমের সাথে ১৪২ রানের দারুণ এক জুটি গড়ে দলকে বড় সংগ্রহ এনে দিতে সাহায্য করেছেন। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ম্যাচেও সাকিব দলের সর্বোচ্চ স্কোরার। আর ইংল্যান্ডের বিপক্ষে অসম্ভব এক লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ১১৯ বলে ১২১ রান করেছেন। একাই বুক উচিয়ে লড়াই করেছন ইংলিশ পেসারদের বিপক্ষে। যদিও ম্যাচটি হেরে গেছে বাংলাদেশ।

তালিকায় ২ নম্বরে আছেন অজি ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার। ৪ ইনিংসে তার সংগ্রহ ২৫৫ রান। ওয়ার্নারেরও রয়েছে একটি সেঞ্চুরি। তিন নম্বরে ইংলিশ ওপেনার জেসন রয়, তার রান ২১৫।

২৬০ রানের পাশাপাশি সাকিব ৩ ম্যাচে বলে হাতে ৩টি উইকেটও নিয়েছেন।

বোলিংয়ে সর্বোচ্চ উইকেট শিকারির স্থানটি পাকিস্তানি পেসার মোহাম্মাদ আমিরের দখলে। যদিও তার বিশ্বকাপ খেলারই কথা ছিলো না। গত এক বছরের বাজে ফর্মের কারণে প্রথমে দলে স্থান হয়নি। এরপর বলা হয় বিশ্বকাপের আগে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ৫ ম্যাচ সিরিজে ভালো করলে সুযোগ পাবেন; কিন্তু সেই সিরিজে খেলা হয়নি চিকেন পক্সের কারণে। তবু শেষ পর্যন্ত অভিজ্ঞতা আর অতীত সফলতার কথা চিন্তা করে তাকে দলে নেয় পাকিস্তান টিম ম্যানেজমেন্ট।

আমির ভালোভাবেই এই আস্থার প্রতিদান দিচ্ছেন। ৩ ম্যাচ খেলে নিয়েছেন ১০ উইকেট। এর মধ্যে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে এক ম্যাচেই শিকার করেছেন ৫ উইকেট। ম্যাচটি পাকিস্তান হেরে গেলেও আমির দারুণ বোলিং করে প্রশংসা কুড়িয়েছেন। রানের পাহাড় গড়তে চলা অজিদের একাই বলতে গেলে আটকে রেখেছেন। যদিও ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায় ৩০৮ রানের লক্ষ্যে পৌছতে পারেনি পাকিস্তান।

এই তালিকায় দুইয়ে আছেন অস্ট্রেলিয়ার দুই পেসার প্যাট কামিন্স ও মিচেল স্টার্ক। দুজনেই নিয়েছন ৯টি করে উইকেট। ৮ উইকেট নিয়ে ৩ নম্বরে আছে নিউজিল্যান্ডের পেসার লকি ফার্গুসন।


আরো সংবাদ