১৬ অক্টোবর ২০১৯

রোজা রেখে খেলার অভিজ্ঞতা যেমন ছিল মিরাজের

মেহেদী হাসান মিরাজ - ফাইল ছবি

বিশ্বকাপের দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে নিজেদের প্রথম ম্যাচে অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ রোজা রেখে ম্যাচ খেলার পর নিজের স্বস্তির কথা প্রকাশ করেছেন। তিনি বলেন, এটা আমার জন্য বড় একটা অভিজ্ঞতা। রোজা রেখে খেলা, এমন একটা ম্যাচে রোজা রেখে খেলা ভাগ্যের ব্যাপার’।

বাংলাদেশ দলের মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদও দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ম্যাচের দিন রোজা রেখে খেলেছেন বলে জানান মেহেদি হাসান মিরাজ।

মিরাজ বলেন, ‘আমি যখন নিয়ত করেছি, তখন আল্লাহর ওপর ছেড়ে দিয়েছি। রিয়াদ ভাই আর মুশফিক ভাইর সাথে নিয়ত করেছিলাম যে রোজা রাখবো’।

কিন্তু এত লম্বা সময় রোজা রেখে খেলা কতটা কঠিন ছিলো? এই প্রশ্নের উত্তরে মিরাজ বলেন, ‘না, আমার খুব ভালো লেগেছে যে এমন দিনে ম্যাচ জিততে পেরেছি। মাশরাফী ভাইও বলছিলেন, আমরা রোজা রেখেছি বলেই রহমত ছিলো।’

মাঠের পারফরমেন্সে কতটা প্রভাব ফেলেছে?
রোজা রেখে মাঠে খেলার সময় খুব একটা কষ্ট না হলেও পরে কিছুটা কষ্ট অনুভব করেন বলে জানান মিরাজ। ‘আসলে খেলা শেষ হওয়ার পর যখন মনে পড়ে, আমি রোজা আছি, তখন কষ্ট হচ্ছিলো।’

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষ ম্যাচে শেষদিকে ব্যাট করতে নেমে ৩ বলে ৫ রান তোলেন মিরাজ। বল হাতে নিয়ন্ত্রিত বোলিং করে ১০ ওভারে ৪৪ রান দিয়ে এক উইকেট নেন।

ব্যাটিংয়ে ৬ নম্বরে ব্যাট করতে নেমে মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ ৩৩ বলে অপরাজিত ৪৬ রানের ইনিংস খেলেন। মুশফিকুর রহিম উইকেট সামলানোর আগে, ৮০ বলে ৭৮ রানের একটি ইনিংস খেলেন।


আরো সংবাদ




astropay bozdurmak istiyorum