১৬ জুন ২০১৯

বিশ্বকাপ নিয়ে কেন উদ্বিগ্ন আইসিসি?

দরজায় কড়া নাড়ছে ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯। আগামী ৩০শে মে পর্দা উঠছে ক্রিকেট দুনিয়ার সবচেয়ে বড় এই আসরের। এই উপলক্ষে সোমবার টুর্নামেন্টকে ঘিরে বিভিন্ন গণমাধ্যমের সাথে কথা বলেছেন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)-র প্রধান নির্বাহী ডেভিড রিচার্ডসন। সাক্ষাৎকারে তিনি বিশ্বকাপকে নিয়ে নিজের উত্তেজনা আর উদ্বেগের কথা প্রকাশ করেছেন।

"আমি শেষবার ১৯৯২ সালে এমন উত্তেজিত ছিলাম, কারণ সে সময় আমি নিজেই ক্রিকেট খেলতাম" - বলছিলেন রিচার্ডসন।

তবে এবার বিশ্বকাপ নিয়ে মানুষের আগ্রহ দেখে এই আয়োজন নিয়ে তিনি মুগ্ধ। "যুক্তরাজ্য ও বৈশ্বিকভাবে টিকেটের প্রচুর চাহিদা এবারে, যা আমাদের আশাবাদী করছে।"

আইসিসি' প্রধান নির্বাহী বলেন, "কিছু ব্যাপার থাকে যা আমাদের নিয়ন্ত্রণে থাকে না, সেসব নিয়েই মূলত আমাদের উদ্বেগ।"

কী সেই উদ্বেগগুলো?

আবহাওয়া

ইংল্যান্ডের আবহাওয়া চিরদিনই আনপ্রেডিক্টেবল, অর্থাৎ এই রোদ তো এই বৃষ্টি। মে মাসের শেষের দিকে এখন লন্ডন শহরের আবহাওয়াতে বেশ অধারাবাহিক লক্ষ্য করা গেছে।

২৬শে মে অর্থাৎ রোববার পুরোদিন মেঘলা আবহাওয়া সাথে বৃষ্টিও হয়েছে সন্ধ্যার দিকে। কার্ডিফে রোববার ভেসে গিয়েছে বাংলাদেশ ও পাকিস্তানের মধ্যকার প্রস্তুতিমূলক ম্যাচ। এ নিয়ে রিচার্ডসন বলেন, এমন আসরে কিছু জিনিস থাকে, যা কারো নিয়ন্ত্রণে থাকে না।

"যেমন আবহাওয়া, আমরা আবহাওয়া নিয়ন্ত্রণ করতে পারবো না," বলছিলেন আইসিসির প্রধান নির্বাহী।

অর্থাৎ বিশ্বকাপের চলতি আসরের কিছু ম্যাচ যে খারাপ আবহাওয়ার খপ্পরে পড়তে পারে, তার আভাস তিনি আগেই দিয়ে রাখছেন।

নিরাপত্তা

আরেকটা ব্যাপার হচ্ছে নিরাপত্তা। যেকোনো বিশ্ব ইভেন্টে নিরাপত্তা নিয়ে একটা উদ্বেগ সবসময়েই থাকে আয়োজকদের। ২০০৯ সালে পাকিস্তানের মাটিতে শ্রীলঙ্কা দলের ওপর সরাসরি হামলা হওয়ার পর থেকে আইসিসি এই বিষয়ে বাড়তি নজরদারি করছে।

চলতি বছরেই বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সফরের সময়, দলের খুব কাছেই, নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে একটি সন্ত্রাসী হামলা এবং সম্প্রতি শ্রীলঙ্কায় হয়ে যাওয়া বোমা হামলার ঘটনার পর এই উদ্বেগ হয়তো বেড়েছে।

তবে আইসিসির প্রধান নির্বাহী জানাচ্ছেন, নিরাপত্তা নিয়ে সন্তোষজনক ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে ইতোমধ্যে।

"বিশ্বজুড়ে এটা নিয়ে আলোচনা হয় আমরা জানি। আমরা ঝুঁকি কমিয়ে আনছি," নিরাপত্তা নিয়ে আশ্বাস দিয়েছেন ডেভিড রিচার্ডসন।

ম্যাচ পাতানো

ম্যাচ পাতানোর ইস্যুতে নিজেদের খুব শক্ত অবস্থানের কথা ব্যক্ত করেছেন ডেভ রিচার্ডসন। যারা ম্যাচ পাতায় তাদের সম্পর্কে তিনি বলেন, "শেষ ১২ মাসে দুর্নীতি দমন ইউনিটের কাজ চোখে পড়ার মতো, আমরা এখন জানি কারা এসব করছে। তারা যাতে বিশ্বকাপের কোনো জায়গায় ঠাঁই না পায়, সে ব্যবস্থা করা হয়েছে।"

এবারে বিশ্বকাপের ফরম্যাট নিয়ে আলোচনা-সমালোচানা হলেও এ ফরম্যাট নিয়ে বেশ আশাবাদী ডেভিড রিচার্ডসন। তাঁর মতে, ১০ দলের বিশ্বকাপ হলেও এটাই সেরা ফরম্যাট, যেখানে সেরা দলগুলোই লড়বে। সূত্র : বিবিসি।


আরো সংবাদ