১৪ নভেম্বর ২০১৮

অবসর নিলেন ভারতের সাবেক পেসার

ভারতের সাবেক পেসার আরপি সিং - সংগৃহীত

আন্তর্জাতিক ওয়ানডে ক্রিকেটে অভিষেকের ঠিক ১৩ বছর পর সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসরের ঘোষণা দিয়েছেন ভারতের সাবেক পেসার আরপি সিং। টুইটারে ৩২ বছর বয়সী সিং আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায়ের কথা জানিয়ে বার্তা দিয়েছেন।

সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘১৩ বছর আগে ২০০৫ সালের ৪ সেপ্টেম্বর আমি প্রথমবারের মত ভারতীয় দলের জার্সি গায়ে মাঠে নেমেছিলাম। সেটা ছিল আমার জীবনের সবচেয়ে স্মরণীয় মুহূর্ত। আজ আমি আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারকে বিদায় জানাচ্ছি। আমার ইচ্ছা আমাকে যেন সবাই মনে রাখে। আমার এই পথচলায় যারা আমাকে সহযোগিতা করেছে তাদের সবাইকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।’

২০০৩-০৪ মৌসুমে প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে সিংয়ের অভিষেক হয়েছিল। ওই সময় বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে দারুণ পারফর্ম করেছিলেন বাঁ-হাতি এই পেসার। টুর্নামেন্টে তিনি সর্বমোট আট উইকেট দখল করেছিলেন। এর পরপরই উত্তর প্রদেশের হয়ে তিনি ঘরোয়া টুর্ণামেন্টে ৬ ম্যাচে ৩৪ উইকেট দখল করেন। তারই ধারাবাহিকতায় ২০০৫ সালে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে হারারে স্পোর্টস ক্লাব মাঠে আরপি সিংয়ের ওয়ানডে অভিষেক ঘটে। আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে দ্বিতীয় ওভারেই তিনি ২ উইকেট তুলে নেন। পরের বছরই পাকিস্তানের বিপক্ষে টেস্ট দলেও জায়গা করে নেন। ফয়সালাবাদ টেস্টেই তিনি ম্যাচ সেরার পুরস্কার জয় করেছিলেন।

অবশ্য ২০০৭ সালে ইংল্যান্ড সফরে নিজের যোগ্যতার প্রমাণ দেন। ২১ বছর বয়সে তিনি লর্ডসে ৫ উইকেট দখল করে ভারতের সিরিজ জয়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন। এরপরপরই দক্ষিণ আফ্রিকায় প্রথমবারের মত অনুষ্ঠিত টি২০ বিশ্বকাপের মাধ্যমে তার ছোট ফর্মেটেও আন্তর্জাতিক অভিষেক হয়। প্রথমবারের মত আয়োজিত ছোট ফর্মেটের বিশ্বকাপে ভারত শিরোপা জয় করেছিল।

আইপিএল’ও তার সূচনাটা বেশ ভালই হয়েছে। দ্বিতীয় মৌসুমে ডেকান চার্জার্সের হয়ে শিরোপা জয়ের পাশাপাশি সর্বোচ্চ ২৩ উইকেট দখল করেছিলেন।

প্রথম শ্রেণীর ক্রিকেটে আরপি সিং ৯৪ ম্যাচে ৩০.৫৭ গড়ে ৩০১টি উইকেট দখল করেছেন। ২০০৫ থেকে ২০১১ পর্যন্ত সব ধরনের ফর্মেটে তিনি ভারতীয় দলের জার্সি গায়ে সর্বমোট ৮২টি ম্যাচ খেলেছেন।


আরো সংবাদ