২১ অক্টোবর ২০১৮

এবার টেস্টে চমক দেখাতে চায় আফগানিস্তান

এবার টেস্টে চমক দেখাতে চায় আফগানিস্তান - ছবি : সংগৃহীত

বিশ্বের দ্বাদশ দেশ হিসেবে বৃহস্পতিবার টেস্ট অভিষেক হচ্ছে আফগানিস্তানের। ব্যাঙ্গালুরুতে ভারতের বিপক্ষে নিজেদের ইতিহাসে প্রথম টেস্ট খেলতে নামবে আফগানরা। বাংলাদেশ সময় সকাল ১০টায় শুরু হবে টেস্টটি।
গত বছরের জুনে একাদশ ও দ্বাদশ দেশ হিসেবে টেস্ট মর্যাদা পায় আয়ারল্যান্ড ও আফগানিস্তান। ইতোমধ্যে টেস্ট অভিষেক হয়েছে আইরিশদের। গত ১১ মে নিজেদের মাঠ ডাবলিনে পাকিস্তানের বিপক্ষে অভিষেক টেস্ট খেলতে নামে আয়ারল্যান্ড। বাংলাদশের পর ১৮ বছর বাদে কোন দলের টেস্ট অভিষেক ঘটে। পাকিস্তানের কাছে ঐ টেস্টটি ৫ উইকেটে আয়ারল্যান্ড।

এবার আয়ারল্যান্ডের পর বিশ্বের দ্বাদশ দেশ হিসেবে টেস্ট খেলতে নামবে আফগানিস্তান। সদ্যই ভারতের দেরাদুনে তিন ম্যাচের টি-২০ সিরিজে বাংলাদেশকে হোয়াইটওয়াশ করেছে আফগানরা। তাই বেশ ফুরফুরে মেজাজেই বিশ্বের এক নম্বর দল ভারতের বিপক্ষে টেস্ট খেলতে নামবে যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশটি।

নিজেদের প্রথম টেস্টটি স্মরণীয় করে রাখার ঘোষণা দিলেন আফগানিস্তানের অধিনায়ক আসগর স্টানিকজাই। তিনি বলেন, ‘সত্যি আমাদের দারুণ একটি দিন সামনে আসছে। ক্রিকেটের আসল লড়াই হলো টেস্ট। আমরা টেস্টটি স্মরণীয় করে রাখতে চাই। এজন্য আমরা সর্বাত্মক চেষ্টা করবো।’

আরো পড়ুন :
র‌্যাংকিংয়ে এগিয়েছেন টাইগ্রেসরা
ক্রীড়া প্রতিবেদক

ভারতকে তিন উইকেটে হারিয়ে প্রথমবারের মতো এশিয়া কাপের শ্রেষ্ঠত্ব অর্জন করেছে বাংলাদেশ জাতীয় মহিলা ক্রিকেট দল। ফাইনালে দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের প্রভাব পড়েছে তাদের টি-২০ র‌্যাংকিংয়ে। ফাইনাল সেরা রুমানা আহমেদ বড় ঝাঁপ দিয়ে ১২তম স্থানে জায়গা করে নিয়েছেন অলরাউন্ডারদের র্যাংকিংয়ে। তার সাথে এগিয়েছেন অফস্পিনার খাদিজাতুল কুবরা। ক্যারিয়ার সেরা পয়েন্ট অর্জন করে বোলারদের র্যাংকিংয়ে জায়গা করে নিয়েছেন ১৩তম স্থানে। এ দিকে ঘোষণা এসেছে মহিলাদের জন্য আলাদা অ্যাকাডেমি গঠনেরও।

রুমানার অলরাউন্ড নৈপুণ্যেই এশিয়া কাপের শিরোপা জয়ের মঞ্চটা পোক্ত হয়েছে বাংলাদেশের। ২২ বলে ২৩ রান করার পাশাপাশি ৪ ওভারে ২২ রান দিয়ে দুই উইকেট শিকার করেছেন ফাইনালে। ভারতের ক্ষেত্রে এগিয়েছেন অধিনায়ক হারমানপ্রীত। টুর্নামেন্ট সেরার পুরস্কার পাওয়া হারমানপ্রীত ৬ খেলায় করেছেন ২১৫ রান। তাতে একধাপ এগিয়ে ব্যাটসম্যানদের তালিকায় রয়েছেন সপ্তম স্থানে। উল্টো দিকে স্মৃতি মন্ধানা দুই ধাপ পিছিয়ে নবম স্থানে। এ ছাড়া ভারতীয় লেগস্পিনার পুনম যাদব ও পাকিস্তানের বাঁহাতি স্পিনার আনাম আমিন টি-২০ র্যাংকিংয়ের সেরা পাঁচে জায়গা করে নিয়েছেন।

বোলারদের র্যাংকিংয়ে রুমানা আছেন বিশে। ২৭ নম্বরে আছেন সালমা, পেসার জাহানারা আলম ৩৫ নম্বরে। ফাইনালে দারুণ বোলিং করলেও উইকেট পাননি নাহিদা আক্তার। তবে পাকিস্তানের বিপক্ষে নিয়েছিলেন ২ উইকেট। ২২ ধাপ এগিয়ে এই বাঁহাতি স্পিনার এখন ৪০ নম্বরে। ব্যাটিংয়ে সেরা পঁচিশেও নেই বাংলাদেশের কেউ। ২৭ নম্বরে থেকে সবার ওপরে সালমা। রুমানা ৩০ আর ফারজানা হক ৩২।

মহিলা ক্রিকেটাররা দেখিয়ে দিয়েছেন চেষ্টা থাকলে সব হয়। কম সুযোগ সুবিধা, কম বেতন-ভাতা পেয়েও দেশের ক্রিকেটকে তারা গৌরবে ভাসিয়েছেন নিজেদের প্রচেষ্টায়। মেয়েদের এমন সাফল্যে টনক নড়েছে সবার। একে একে পুরস্কারের ঘোষণা আসছে, আসছে সুযোগ-সুবিধা বাড়ানোর আশ্বাসও। তেমনই একটি ঘোষণা এলো ক্রীড়া মন্ত্রণালয় থেকে। ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বীরেন শিকদার মনে করছেন, এটা আমাদের দেশের ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় সাফল্য। মহিলা দলকে অভিনন্দন জানিয়ে তিনি বলেন, ‘সন্দেহাতীতভাবেই আমাদের দেশের স্মরণীয় এবং সবচেয়ে বড় সাফল্য। মহিলাদের জন্য আলাদা একটি অ্যাকাডেমি গঠন করা হবে। প্রধানমন্ত্রী দেশে ফেরার পর আলোচনা সাপেক্ষে সবই করা হবে।’


আরো সংবাদ