esans aroma gebze evden eve nakliyat Ezhel Şarkıları indir Entrumpelung wien Installateur Notdienst Wien webtekno bodrum villa kiralama
২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০
ঢাবি হলের গেস্টরুমে ৪ শিক্ষার্থীকে নির্যাতন

নিরাপদ ক্যাম্পাসের দাবিতে সন্ত্রাসবিরোধী ছাত্রঐক্যের বিক্ষোভ

ঢাবি গেস্টরুমে ছাত্র নির্যাতনের বিচার দাবিতে অবস্থান কর্মসূচিতে ডাকসু ভিপি নুরুল হক : নয়া দিগন্ত -

ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলের গেস্টরুমে ছাত্রশিবিরের কর্মী মনে করে চার শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগ ও হল সংসদের নেতাকর্মীদের নির্যাতনের বিচারের দাবি জানিয়েছে শিক্ষার্থীরা। এ দাবিতে কয়েক দফায় বিক্ষোভ ও মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছেন তারা। এসব কর্মসূচি থেকে তারা নিরাপদ ও গণতান্ত্রিক ক্যাম্পাস গড়ে তোলার জোর দাবি জানিয়েছেন।
গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে আয়োজিত এক বিক্ষোভ সমাবেশে এই দাবি জানিয়েছেন শিক্ষার্থীরা। বারো সংগঠনের প্ল্যাটফর্ম ‘সন্ত্রাসবিরোধী ছাত্র ঐক্য’ এই বিক্ষোভ সমাবেশের আয়োজন করে। শিক্ষার্থী মারধরের ঘটনায় প্রক্টরের পদত্যাগসহ চার দফা দাবি এবং ২০১৮ সালের ২৩ জানুয়ারি নিপীড়নবিরোধী শিক্ষার্থীদের ওপর ছাত্রলীগের হামলার দুই বছর পূর্তি উপলক্ষে এই সমাবেশের আয়োজন করা হয়। সমাবেশে ডাকসুর ভিপি নুরুল হক নুর, সমাজসেবা সম্পাদক আখতার হোসেন, সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন, যুগ্ম আহ্বায়ক ফারুক হাসান, রাশেদ খান, মাহফুজুর রহমান খান, ছাত্র ইউনিয়নের কেন্দ্রীয় সভাপতি মেহেদী হাসান নোবেল, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের নেতা নাসির উদ্দীন প্রিন্সসহ সন্ত্রাসবিরোধী ছাত্রঐক্যের নেতারা উপস্থিত ছিলেন। সমাবেশ শেষে ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন তারা।
বিক্ষোভ পূর্ববর্তী সমাবেশে ডাকসু ভিপি নুরুল হক নুর বলেন, ছাত্রলীগের নির্যাতনের ঘটনা নতুন নয়, তারা ডাকসুতে হামলা করেছে, বুয়েটে হামলা হয়েছে। শিক্ষার পরিবেশ নষ্ট করছে এই পেটোয়া বাহিনী। যদি এখনই তাদের প্রতিরোধ না করা হয়, তাহলে নিরাপদ ক্যাম্পাস বিঘিœত হবে। শিক্ষার্থীরা ঐক্যবদ্ধ হলে যেকোনো কিছু আদায় করা সম্ভব। ইতোমধ্যে শিক্ষার্থীদের মধ্যে নিপীড়নের বিরুদ্ধে গণসচেতনতা তৈরি হয়েছে।
এ সময় চার দফা দাবি তুলে ধরা হয়। দাবিগুলো হলো, দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ প্রক্টর অধ্যাপক এ কে এম গোলাম রব্বানীর পদত্যাগ; প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থীর বৈধ সিট ও অছাত্র-বহিরাগত বিতাড়ন করে ছাত্রলীগের দখলদারিত্ব বন্ধ করা; ২২ ডিসেম্বর ডাকসু ভবনে হামলা ও চার শিক্ষার্থী নির্যাতনের ঘটনায় জড়িতদের আজীবন বহিষ্কার এবং নিরাপদ ও গণতান্ত্রিক ক্যাম্পাস বিনির্মাণ। চার শিক্ষার্থী নির্যাতনের দাবিতে সহপাঠীদের প্রতিবাদ : এদিকে চার শিক্ষাথী নির্যাতনের ঘটনার বিচার দাবি করেছেন বিশ^বিদ্যালয়ের ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের শিক্ষার্থীরা। মারধরের শিকার হওয়া মুকিমের পাশে দাঁড়াতে তার নিজ বিভাগের শিক্ষার্থীরা বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে এক মানববন্ধনে এই দাবি জানান। বিভাগের প্রায় শতাধিক শিক্ষার্থী মানববন্ধনে অংশ নেন।
মানববন্ধন থেকে প্রশাসনের কাছে চার দাবি জানান শিক্ষার্থীরা। দাবিগুলো হলো নির্যাতনের সঙ্গে জড়িতদের বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি; স্বাধীনভাবে মত প্রকাশ ও চলাফেরা করার নিরাপদ ক্যাম্পাস নির্মাণ; আবাসিক হলগুলোতে সাধারণ শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিশ্চিত; প্রথম বর্ষ থেকেই হলে বৈধ সিট বরাদ্দ ও সিট বাণিজ্য বন্ধ করা।’ এ ছাড়াও মারধরের বিচারের দাবিতে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেছেন ট্যুরিজম অ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের শিক্ষার্থী মুকিম চৌধুরী। শাহবাগ থানা থেকে ছাড়া পেয়েই রাজু ভাস্কর্যে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন তিনি। মঙ্গলবার রাতে শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলে তাকে শিবির সন্দেহে রুম থেকে ডেকে নিয়ে মারধর করা হয়। টানা ২২ ঘণ্টা অবস্থানের পর অসুস্থ হয়ে পড়ায় গতকাল বিকেল ৩টার দিকে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
গেস্টরুমে চার শিক্ষার্থীকে ছাত্রলীগের নির্যাতনের ঘটনায় তদন্ত কমিটি : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হলে ছাত্রলীগ ও হল সংসদের নেতাদের দ্বারা চার শিক্ষার্থীকে রাতভর নির্যাতনের ঘটনায় তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে হল প্রশাসন। সাত কার্যদিবসের মধ্যে কমিটিকে সুপারিশসহ প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে। জহুরুল হক হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক দেলোয়ার হোসেন এই তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। হলের আবাসিক শিক্ষক মুহাম্মদ জাহিদুল ইসলামকে প্রদান করে গঠিত কমিটিতে বাকি দু’জন হলেন মো: এনামুল হক ও মোহাম্মদ আশরাফ সাদেক।


আরো সংবাদ




short haircuts for black women short haircuts for women Ümraniye evden eve nakliyat