২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৯

হয়রানি অভিযোগ জানাতে পুলিশের কাছে জেসিয়া 

হয়রানি অভিযোগ জানাতে পুলিশের কাছে জেসিয়া  - সংগৃহীত

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কে বা কারা জেসিয়া ইসলামের নামে নাকি অপপ্রচার চালাচ্ছেন। এসব দমন করতে কঠোর হয়েছেন ২০১৭ সালের ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’। অপমানিত ও ক্ষুব্ধ জেসিয়া মঙ্গলবার দুপুরে মিন্টো রোডের ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিটে যান। সেখানে তিনি অপপ্রচার ও মানহানির অভিযোগ দায়ের করেন। জেসিয়ার অভিযোগ দায়েরের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার নাজমুল ইসলাম। এরই মধ্যে সাইবার অপরাধ বিভাগ তদন্ত শুরু করেছে।

নাজমুল ইসলাম বলেন, ‘দেশে ও দেশের বাইরে চারজনকে শনাক্ত করা হয়েছে। অনুসন্ধান করে প্রয়োজনীয় তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করে সবার বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পুলিশ সাইবার অপরাধের ব্যাপারে সতর্ক দৃষ্টি রাখছে। শুধু তা-ই নয়, অনলাইনে হয়রানির বিষয়ে বাংলাদেশ পুলিশ জিরো টলারেন্স প্রদর্শন করবে।’

পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগ কার্যালয় থেকে বের হয়ে জেসিয়া ইসলাম বলেন, ‘অনেক সহ্য করেছি, আর না। এভাবে আর চলতে পারে না। বাধ্য হয়ে পুলিশের কাছে হাজির হয়েছি। মঙ্গলবার দুপুরে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিটে অভিযোগ দায়ের করেছি। কয়েক দিন ধরে আমাকে নিয়ে ফেসবুকে কিছু ভুয়া আইডি আর ভুয়া ভিডিও বানিয়ে সামাজিকভাবে হেয় প্রতিপন্ন করতে একটি মহল উঠেপড়ে লেগেছে। অপরাধীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করতে এই অভিযোগ দায়ের করেছি। আশা করছি শিগগিরই পুলিশের সাইবার অপরাধ বিভাগ সংশ্লিষ্টদের খুঁজে বের করে শাস্তির আওতায় নিয়ে আসবে এবং ওই সব ভুয়া কনটেন্ট ইন্টারনেট থেকে মুছে দেবে।’

২০১৭ সালের ‘মিস ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ’জেসিয়া ইসলাম চীনে অনুষ্ঠিত ‘মিস ওয়ার্ল্ড’ প্রতিযোগিতার মূল আসরে অংশ নেন। প্রতিযোগিতায় সেরা ৪০-এ ছিলেন তিনি। প্রতিযোগিতা থেকে ফিরে এসে জানিয়েছিলেন বড় পর্দায় কাজের আগ্রহের কথা। তবে তা পড়াশোনা শেষে। তারপর থেকে বিনোদন অঙ্গনের সাথে তার সম্পৃক্ততা ক্রমশ কমতে শুরু করে।


আরো সংবাদ

Hacklink

ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme