১৬ ডিসেম্বর ২০১৯

চট্টগ্রাম বন্দরে ৩৭ হাজার কেজি কসমেটিকস জব্দ

চট্টগ্রাম বন্দরে বিশাল এক কসমেটিকস সামগ্রীর চালান জব্দ করা হয়েছে। বুধবার চট্টগ্রাম কাস্টমস কর্তৃপক্ষ কায়িক পরীক্ষা শেষে চালানটি আটক করে। কন্টেইনার খুলে প্রায় ৩৭ হাজার কেজি বিভিন্ন ধরনের কসমেটিকস পাওয়ার কথা নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম কাস্টমস কর্তৃপক্ষ।

বুধবার রাতে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে কাস্টমস কর্তৃপক্ষ জানায়, ঢাকার চম্পাটলি লেইনের আমদানিকারক অনলি ওয়ান ইন্টারন্যাশনাল চীন থেকে ২৩ হাজার কেজি পানির পাম্প আমদানির ঘোষণা দেয়। চালানটি খালাসের জন্য গত ৫ নভেম্বর চট্টগ্রাম কাস্টমসে বিল অব এন্ট্রি জমা দেয় সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট। শুল্কও পরিশোধ করে। তার আগেই কাস্টমস গোয়েন্দার পানির পাম্পের পরিবর্তে কসমেটিকস আনার গোপন সংবাদের ভিত্তিতে চট্টগ্রাম কাস্টম হাউসের এ.আই.আর শাখার অভিযানে পণ্য চালানটি করা হয়।

চট্টগ্রাম কাস্টমসের গোয়েন্দা বিভাগের প্রধান ও উপ কমিশনার নুর উদ্দিন মিলন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, চালানটিতে মোট এক কোটি ৩০ লাখ টাকার শুল্ক ফাঁকি ছিল। চালানটির আমদানিকারক ঢাকার অনলি ওয়ান ইন্টারন্যাশনাল, আর পণ্য খালাসের দায়িত্বে ছিল সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট উজালা শিপিং লাইনস।

বন্দর সূত্র জানায়, কন্টেইনার খুলে কায়িক পরীক্ষার পর চালানটিতে পানির পাম্প পাওয়া যায় মাত্র ২০২ কেজি, অথচ ঘোষণা দিয়েছিল ২৩ হাজার কেজি। তবে কন্টেইনার খোলার পর একে একে বেরিয়ে আসে বিভিন্ন ধরনের ও ব্র্যান্ডের কসমেটিকস সামগ্রী।

নুর উদ্দিন মিলন বলেন, গোপন তথ্যের ভিত্তিতে চালানটি আটক করি। পরে কন্টেইনার খুলে প্রায় ৩৭ হাজার কেজি বিভিন্ন ধরনের কসমেটিকস পাওয়া যায়। এতে প্রায় এক কোটি ৩০ লাখ টাকার রাজস্ব ফাঁকি হয়েছিল। কাস্টমস আইন অনুসারে পরবর্তী কার্যক্রম গ্রহণ করা হবে বলে জানান তিনি। সূত্র : ইউএনবি।


আরো সংবাদ




hacklink Paykwik Paykasa
Paykwik