১৯ অক্টোবর ২০১৯

ঝুঁকি, শিক্ষার্থীদের পারাপারের একমাত্র ভরসা রেলসেতু

ঝুঁকি, শিক্ষার্থীদের পারাপারের একমাত্র ভরসা রেলসেতু - নয়া দিগন্ত

লাকসামে একটি সেতুর অভাবে রেলসেতুর ওপর দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে প্রতিদিন শত শত শিক্ষার্থী হাজার হাজার মানুষ চলাচল করছেন। লাকসাম-চাঁদপুর রেললাইনে উপজেলা মুদাফরগঞ্জ ইউনিয়নে কাগৈয়া গ্রামে কার্জন খালের ওপর ওই রেলসেতু দিয়ে চলাচল করতে গিয়ে প্রায় ঘটেছে হতাহতের ঘটনা।

ভুক্তভোগীরা জানান, কার্জন খালের ওপর ব্রিজ না থাকায় রেলসেতু দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হতে হয়। ওই স্থানে একটি ব্রিজ নির্মাণের দাবি এ অঞ্চলের মানুষের দীর্ঘদিনের। তবে গত ৩৫ বছর ধরে এ দাবি জানিয়েও কোনো লাভ হয়নি বলে জানিয়েছেন স্থানীয়রা। বিকল্প ব্রিজ না থাকায় বাধ্য হয়ে প্রতি বছরে চাঁদা উঠিয়ে বাজার থেকে কাঠের পাটাতন কিনে এনে রেলসেতুর মাঝখানে বসিয়ে যাতায়াতের ব্যবস্থা করেন স্থানীয়রা। রেলসেতুর পাশে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, প্রতিদিন স্কুলে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা জীবনের ঝুঁকি নিয়ে স্কুলে আসা-যাওয়া করতে গিয়ে ছোটবড় দুর্ঘটনা ঘটে। প্রায় ৮ গ্রামের মানুষকে বিপজ্জনক এ রেলসেতু দিয়ে পারাপার হতে হয়।

জানা গেছে, কার্জন খালের ওপর ব্রিজ না থাকায় বিপজ্জনক রেলসেতু দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে পারাপার হতে হয় লোকজনকে। শুধু একটি ব্রিজের অভাবে যুগ যুগ ধরে যোগাযোগ ব্যবস্থা নাজুক হওয়ায় ভাগ্য বদলায়নি ৮টি গ্রামের ২০ হাজার মানুষের। ব্রিজটি নির্মিত হলে একদিকে ওই এলাকার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের কয়েকশ’ শিক্ষার্থী নিরাপদে আসা যাওয়া করতে পারবে আবার অন্যদিকে পাল্টে যাবে উপজেলা কাগৈয়া, নলুয়া, সালেপুর, শ্রীয়াং খালপাড়, পরানপুর, নোয়াপাড়া, চিতোষী, রেলস্টেশন, নাকঝাটিয়াসহ কয়েকটি গ্রামের যোগাযোগ ব্যবস্থার দৃশ্য।

এ ছাড়া এসব এলাকার বাড়বে গ্রামীণ ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রসার। এ এলাকায় ৩টি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মধ্যে তোরাব আলী উচ্চ বিদ্যালয়, জালাল মেমোরিয়াল উচ্চ বিদ্যালয় ও একটি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। কার্জন খালের পশ্চিমে পরানপুর, চিতোষী, নোয়াপাড়াসহ প্রায় ৪টি গ্রামের শতাধিক শিক্ষার্থী ওই রেলসেতু দিয়ে প্রতিদিন পারাপার হয়।

কাগৈয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পড়ুয়া শিক্ষার্থী কুলসুম আক্তার, খাদিজা আক্তার মিম, সুমাইয়া, মাহবুবু আলম, হৃদয় খান, বিল্লাল হোসেন ও আলামিন বলেন, রেলসেতু দিয়ে স্কুলে পারাপারের সময় ভয়ের মধ্যে থাকি। সেতুর মাঝখানে আসলে ব্রিজের নিচে পানি দেখে পা থরথর কেঁপে উঠে। অনেক সময় সঙ্গে থাকা বই, খাতা, কলম পড়ে যায়। শিক্ষার্থীরা আরও বলেন, পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী সুমাইয়া গত ৬ মাস আগে রেলসেতু দিয়ে পারাপারে সময় ট্রেন আসতে দেখে লাফিয়ে পানিতে পড়ে গুরুতর আহত হয়। আমরা সবসময় আতঙ্কে থাকি। সরকারিভাবে ব্রিজ নির্মাণ হলে আমরা নির্বিঘ্নে সবাই স্কুলে যাতায়াত করতে পারব।

স্থানীয় ইউপি সদস্য ফয়জুল আলম মিয়াজী বলেন, এলাকার মানুষ অনেক কষ্টে যাতায়াত করতে হিমশিম খাচ্ছে। পাশাপাশি গর্ভবতী মায়েদের হাসপাতালে নেয়া অসম্ভব হয়ে পড়ে। ইউপি চেয়ারম্যান আবদুর রশিদ সওদাগর বলেন, এ অঞ্চলে মানুষ বিপজ্জনক রেলসেতু দিয়ে যাতায়াত করে আসছে। বিকল্প সেতু না থাকায় মানুষ ভোগান্তির শিকার হয়।


আরো সংবাদ

সৌদিতে নিহত ওমরাহ যাত্রীদের ১১ জনই বাংলাদেশি আমি এখন ইচ্ছার বিরুদ্ধে রাজনীতি করি : শামীম ওসমান বাজেট সঙ্কটে জাতিসংঘ সদর দফতর দুই দিন বন্ধ গাজীপুরে বিএনপির দলীয় কার্যালয় গুড়িয়ে দিলো সওজ নাগেশ্বরীতে ধানক্ষেত থেকে যুবকের লাশ উদ্ধার ঐক্যফ্রন্ট রাজনীতির মাঠে বিগত যৌবনা : তথ্যমন্ত্রী ভিন্নমত পোষণকরীকে হত্যা সংবিধানের সাথে সাংঘর্ষিক : আসিফ নজরুল কয়েকজন নেতা রাস্তায় নামলে লাখো জনতা আসবে : খন্দকার মাহবুব মেসি-সুয়ারেজ-গ্রিজম্যানের গোলে বার্সার দুর্দান্ত জয় ভক্তের সাথে নাচতে গিয়ে মঞ্চ থেকে পরে গেলেন লেডি গাগা সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য শেখ হাসিনা ও আমি আন্দোলন করেছি : মেনন

সকল

দেশী-বিদেশী পাইলটরা লেজার লাইট আতঙ্কে (৩৯৯৩৬)পাকিস্তান বনাম ভারত যুদ্ধপ্রস্তুতি : কে কতটা এগিয়ে (২৮৪৮৪)ভারতীয় বিমানকে ধাওয়া পাকিস্তানের, আফগানিস্তান গিয়ে রক্ষা (২১৮৯৮)দুই বাঘের ভয়ঙ্কর লড়াই ভাইরাল (ভিডিও) (২০৬১৪)শীর্ষ মাদক সম্রাটের ছেলেকে আটকে রাখতে পারলো না পুলিশ, ব্যাপক দাঙ্গা-হাঙ্গামা (১৪৭১৯)রৌমারী সীমান্তে বিএসএফ’র গুলি ও ককটেল নিক্ষেপ! (১৪৫৭২)বিশাল বিমানবাহী রণতরী নির্মাণ চীনের, উদ্বেগে যুক্তরাষ্ট্রসহ অনেকে (১৪৩৩৮)‘গরু ছেড়ে মহিলাদের দিকে নজর দিন’,: মোদির প্রতি কোহিমা সুন্দরীর পরামর্শে তোলপাড় (১৩৫৮২)বিএসএফ সদস্য নিহত হওয়ার বিষয়ে যা বললো বিজিবি (১১৮৬৩)লেন্দুপ দর্জির উত্থান এবং করুণ পরিণতি (৯৩৩৫)



portugal golden visa