১৯ জুন ২০১৯

খাগড়াছড়িতে গণধর্ষণে কিশোরীর মৃত্যুর অভিযোগ, আটক ৩

খাগড়াছড়ির ভাইবোন ছড়ায় গণধর্ষণে ধনিতা ত্রিপুরা (১৭) নামে এক কিশোরীকে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ করা হয়। এ ঘটনায় পুলিশ সন্দেহভাজনক তিন ধর্ষককে আটক করেছে। সোমবার রাতে কোন এক সময় খাগড়াছড়ি সদর উপজেলার ভাইবোন ছড়ার বড় পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, সোমবার বড় পাড়ার বাসিন্দা নল মোহন ত্রিপুরা তার স্ত্রীকে নিয়ে জেলার দীঘিনালায় বেড়াতে যায়। রাতে বাড়ী ফেরার কথা থাকলেও তারা বাড়ী ফিরেননি। কিশোরী ধনিতা ত্রিপুরা বাসায় একাই ছিলেন।

কিশোরীর মা স্বরলেখা ত্রিপুরা জানান, কিছুদিন আগ থেকে বখাটে কম্বল ত্রিপুরা ধনিতা ত্রিপুরাকে তার কাছে বিয়ে দেয়ার জন্য চাপ দিয়ে আসছিল। গতকাল রাতে তার মেয়ের ফোন থেকে কম্বল ত্রিপুরা ফোন করে তার মেয়েকে উঠিয়ে নেয়ার হুমকী দেয়। পরে মঙ্গলবার সকাল ৯টার দিকে ধনিতা ত্রিপুরার বড় ভাই রামেন্দ্র ত্রিপুরার স্ত্রী খোঁজ নিতে গিয়ে ননদের লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার এম এম সালাহ উদ্দিন জানান, লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। তদন্ত করে প্রকৃত অপরাধীকে আটক করা হবে।

খাগড়াছড়ি সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সাহাদাত হোসেন টিটো জানান, স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান পরিমল ত্রিপুরার কাছ থেকে খবর পেয়ে লাশ উদ্বার করে ময়না তদন্তের জন্য খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে গণধর্ষণে কিশোরীর মৃত্যু হয়েছে বলে ধারনা করা হচ্ছে।

এ ঘটনায় সন্দেজনক তিন ধর্ষককে আটক করা হয়েছে। আটকৃতরা হচ্ছে, রুমেন ত্রিপুরা(২২), কিরণ ত্রিপুরা(২০) ও কম্বল ত্রিপুরা(১৯)।


আরো সংবাদ