২৭ জুন ২০১৯

রাস্তায় ধানের চারা লাগিয়ে এলাকাবাসীর প্রতীকী প্রতিবাদ

টগড়া-পিরোজপুর আঞ্চলিক মহসড়কে মাটি খোঁড়াখুঁড়ি, পানি কাদায় গর্ত হয়ে যান চলাচল ব্যাহত
-

ইন্দুরকানীর টগড়া-পিরোজপুর আঞ্চলিক মহাসড়কে সংস্কারের নামে মাটি খোঁড়াখুঁড়ির কাজ করায় বিভিন্ন স্থানে গর্ত হয়ে যান চলাচল ব্যাহত হচ্ছে। রিকশা, অটোরিকশা ও ভারী যানবাহন চলাচল করতে পারছে না। দুয়েকটি যাত্রীবাহী লোকাল বাস চললেও পণ্যবাহী গাড়ি আসতে না পারায় সবিজিসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের মূল্য অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রতিবাদে এলাকাবাসী সড়কে ধানের চারা রোপণ করেছে।

পিরোজপুর সড়ক ও জনপথ বিভাগের অধীনে টগড়া ফেরীঘাট থেকে পিরোজপুর পর্যন্ত ১২ কিলোমিটার সড়কের সংস্কার কাজ চলছে। এ সংস্কারের জন্য রাস্তা খুঁড়ে কাজ চলছে। ঘূর্ণিঝড় তিতলীর প্রভাবে গত বুধবার থেকে প্রবল বর্ষণের ফলে রাস্তার বিভিন্ন অংশে বড় বড় গর্ত হয়ে পানি-কাদায় একাকার হয়ে যায়।

সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয় ইন্দুরকানী উপজেলার টগড়া ফেরীঘাট থেকে চালনা ব্রিজ পর্যন্ত ৩ কিলোমিটার সড়ক। এই ৩ কিলোমিটার সড়ক একেবারে যান চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ায় সাধারণ পথচারীসহ যাত্রীরা মারাত্মক দুর্ভোগে পড়েছে।

শুক্রবার সরজমিনে টগড়া ফেরীঘাট সড়কে গিয়ে দেখা যায়, সড়ক খুঁড়ে বালু দেয়ায় বৃষ্টিতে বালু ধুয়ে কাদায় একাকার হয়ে আছে এবং বিভিন্ন স্থানে গর্ত হয়ে গেছে। কোনো ভারী যানবাহন চলাচল করতে পারছে না।

টগড়া ফেরীঘাটের ব্যবসায়ী আতিকুর রহমান জানান, এই সড়কটি সংস্কার কাজের জন্য কার্পেটিং খুড়ে বালু দেয়ায় বৃষ্টিতে বালু ধুয়ে সড়কটি কাদায় কর্দমাক্ত হয়ে আছে। যানবাহন ও সাধারণ মানুষ চলাচল করতে পারছে না।

পিরোজপুর সড়ক ও জনপথ বিভাগ সূত্রে জানা যায়, টগড়া ফেরীঘাট থেকে পিরোজপুর পর্যন্ত সড়কের উন্নয়নমূলক কাজ করার কারণে হঠাৎ বৃষ্টি হওয়ায় কোথাও কোথাও সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। তবে খুব শিগগিরই সমাধানের চেষ্টা চলছে।


আরো সংবাদ

নিউজিল্যান্ডকে উড়িয়ে দিলো পাকিস্তান বিশ্বকাপে বাবরের দারুণ সেঞ্চুরি দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ে জয়ের আভাস দিচ্ছে পাকিস্তান বিন্দুমাত্র সুযোগ থাকলেও ভারতের বিপক্ষে নামবো : মাহমুদউল্লাহ নির্যাতন বন্ধে সরকারের ভূমিকা প্রশ্নবিদ্ধ বাবর-হাফিজের ব্যাটে ছুটছে পাকিস্তান ঝুলে গেল আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থার নির্বাচন আগামী বছর ফের ভোট ব্যবসায়ী ভ্রমণ কোটার আওতায় এলেন এজেন্টরা ১০ হাজার ডলার ব্যয় করার অনুমোদন দিয়ে বৈদেশিক মুদ্রার নীতিমালা শিথিল দীর্ঘ মেয়াদে ওয়াশ খাতে ব্যয়ের প্রবণতা ক্রমেই কমছে ড. হোসেন জিল্লুর গতিহীন সাক্ষরতার হার বৃদ্ধির প্রকল্প ৫ বছরে অগ্রগতি ৩৬.২৭ শতাংশ; মূল কাজ শুরু করতেই তিন বছর পার সুলতানি আমলের স্মৃতিবিজড়িত বারো দুয়ারি মসজিদ অনন্য স্থাপত্য

সকল