১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯

ময়মনসিংহে তুচ্ছ ঘটনায় রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ বাবা-ছেলেসহ ৩ জন নিহত

-

ময়মনসিংহের ঈশ্বরগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের সংঘর্ষে প্রতিপক্ষের হামলায় বাবা-ছেলে ও ভাতিজা নিহত এবং দুই সহোদর আহত হয়েছেন। গত বুধবার সকালে উপজেলার কাঠালডাংরী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ঈশ্বরগঞ্জ থানার ওসি আহমেদ কবির হোসেন খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, কাঠালডাংরী গ্রামের হাসিম উদ্দিনের পোলট্রি ফার্মের দুর্গন্ধ নিয়ে বড় ভাই আবদুর রাশিদের সাথে দুই মাস আগে মারামারির ঘটনায় একটি মামলা হয়। ওই মামলা মীমাংসা করার জন্য গত বুধবার বাড়িতে সালিস বসার কথা ছিল। এ নিয়ে সকাল সাড়ে ৮টার দিকে আবদুর রাশিদের ছেলে আজিবুল হকের সাথে হাসিম উদ্দিনের ছেলে জহিরুল ইসলামের কথাকাটাকাটির একপর্যায়ে আজিবুলের নেতৃত্বে হাসিম উদ্দিনের ছেলেদের ওপর হামলা চালানো হয়। রামদার আঘাতে হাসিম উদ্দিনের ছেলে জহিরুল ইসলাম (২৫) রক্তাক্ত জখম হয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। এ সময় হাসিম উদ্দিন ছেলেকে বাঁচাতে গেলে তিনিও গুরুতর জখম হন। এরপর দু’পক্ষের সংঘর্ষে হাসিম উদ্দিন (৭০) ও তার অন্য দুই ছেলে মাজাহারুল ইসলাম (২০) ও খায়রুল ইসলাম (১৭) এবং আবদুর রাশিদের ছেলে আজিবুল হক (৩৫) জখম হন।
তাদেরকে উদ্ধার করে প্রথমে ঈশ্বগরঞ্জ সদর হাসপাতালে নেয়া হলে হাসিম উদ্দিনের ছেলে জহিরুল ইসলামকে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। বাকি চারজনকে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়ায় পথে হাসিম উদ্দিন ও আজিবুল হক মারা যান। আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসিম উদ্দিনের দুই ছেলে মাজাহারুল ইসলাম ও খায়রুল ইসলামকে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তির পর তাদের অবস্থার অবনতি হলে ঢাকায় স্থানান্তর করা হয়।
খবর পেয়ে ময়মনসিংহ রেঞ্জের ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি, জেলা প্রশাসক মিজানুর রহমান ও পুলিশ সুপার শাহ আবিদ হোসেন ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে জড়িতদের গ্রেফতারের নির্দেশ দিয়েছেন।


আরো সংবাদ