২০ নভেম্বর ২০১৯

হংকং পার্লামেন্টে ‘স্টেট অব দ্য ইউনিয়ন’ ভাষণে বিশৃঙ্খলা

সরকার বিরোধী বিক্ষোভের মধ্যে হং কংয়ের নেতা কেরি লাম বুধবার পার্লামেন্টে বার্ষিক ‘স্টেট অব দ্য ইউনিয়ন’ ভাষণ দেন। কিন্তু ভাষণ প্রদানকালে বিভিন্ন প্রশ্নের মুখে তা স্থগিত করতে বাধ্য হন তিনি। বিবিসি’র প্রতিবেদনে বলা হয়, অধিবেশনে কেরি বক্তব্য শুরু করার পর থেকেই বিরোধীদলীয় আইনপ্রণেতারা বিভিন্ন শোরগোল ও ব্যঙ্গ-বিদ্রুপ করছিলেন।

প্রথমবার সংক্ষিপ্ত বাধার পরে অধিবেশনের ভাষণ পুনরায় শুরু করেন কেরি লাম। কিন্তু দ্বিতীয়বার বাধার সম্মুখীন হলে পুরো ভাষণটি স্থগিত করা হয়।

হং কংয়ে গত কয়েকমাস ধরেই সরকার-বিরোধী বিক্ষোভের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। বিক্ষোভকারীদের আন্দোলনের কারণে গত জুলাইয়ে বন্ধ হয়ে যাওয়া পার্লামেন্ট প্রথমবারের মতো বুধবার পুনরায় শুরু হয়েছিল।

এ সভাতে বিক্ষোভের জন্ম দেয়া বিতর্কিত প্রত্যর্পণ বিল আনুষ্ঠানিকভাবে প্রত্যাহার করবে বলে আশা করা হয়েছিল।

প্রসঙ্গত, ব্রিটিশ উপনিবেশ থেকে মুক্ত হয়ে চীনের অধীনে থাকা হংকংয়ে সাম্প্রতিক দাঙ্গা বা বিক্ষোভ শুরু হয় মূলত বন্দি বিনিময় আইনের খসড়াকে কেন্দ্র করে।

ওই আইনে বলা ছিল হংকংয়ে কেউ গ্রেপ্তার হলে তাকে চীনের হাতে তুলে দেয়া যাবে, যেখানে রয়েছে ভিন্ন ধরনের বিচার ব্যবস্থা। খসড়া আইনটি বাতিলের দাবিতে এরপর সেখানে নিয়মিতভাবে প্রতিবাদ-বিক্ষোভ চলতে থাকে যেখানে লাখ লাখ মানুষ যোগদান করেন।

ব্যাপক জন-বিক্ষোভের মুখে গত জুনে খসড়া প্রস্তাবটি সাময়িকভাবে স্থগিত এবং গত সেপ্টেম্বরে পাকাপাকিভাবে তা বাতিল করা হলেও বিক্ষোভকারীরা আরও বিভিন্ন দাবি জানিয়ে আসছে। সূত্র : ইউএনবি।


আরো সংবাদ