১৯ নভেম্বর ২০১৮

গরুর হাটে ঈদ আনন্দ

-


‘হাটে যাবো গরু-ছাগল দেখব, পছন্দ হলে কিনব’Ñ এই আনন্দ এই শখ ছোট-বড় সবার। ঘুরে ঘুরে গরু-ছাগল দেখা, পছন্দ হলে দাম হাঁকাÑদরদাম করা অথবা কেউ কিনছে সেখানে দাঁড়িয়ে থাকা আবার রাস্তা দিয়ে গরু নিয়ে যাওয়ার সময় ‘দাম কত ভাই’ প্রশ্ন করা বা উত্তর দেয়া-এই তো কোরবানির ঈদের আমেজ।
তবে তার মাঝে ছোটদের ব্যস্ততা থাকে বেশী। বাবা-চাচাদের হাত ধরে গরুর হাটে যাওয়া, ঘুরে ঘুরে গরু দেখা সে এক অন্য রকম অনুভূতি। কখনো বা বাবার কাছে আবদার থাকে ‘বাবা ওই লাল গরুটা দেখো’। আবার কখনো বাবারা বলে ‘পছন্দ হয়েছে এই গরুটা’। আবার যখন গরু কেনা হয়ে যায় তখন গরুর পেছন পেছন থাকা, পারলে এক হাত গরুকে স্পর্শ করে রাখা। তখন মুখে থাকে অনাবিল হাসি আর একটা ‘জয় করেছি’ ভাব। হাটের আনন্দ আপাতত শেষ, তবে সমাপ্তি নয়। শখ করে গরুর জন্য কাটা হয় ঘাস-লতাপাতা। ধীরে ধীরে ঈদ আসে। কোরবানি হয় শখের পশু, বড়রা যখন কাটাকাটি নিয়ে ব্যস্ত, ছোটরা তখন নরম দুই হাত দিয়ে যায় বড়দের সাহায্য করতে। কোরবানির সব কাজ শেষে তখনো এই ছোটদের চাঞ্চল্য থেমে থাকে না।


আরো সংবাদ

সকল