২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯

গাজীপুরে গ্যাসের আগুনে পুড়ে একই পরিবারের চারজন নিহত

গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ইসলামপুর এলাকায় একটি বাড়িতে রান্না করার সময় গ্যাস সিলিন্ডার লিকেজ হয়ে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় দুই শিশুসহ এক পরিবারের চারজন নিহত হয়েছে। বুধবার রাত দশটার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন স্থানীয় রেনেসা অ্যাপারেলস পোশাক কারখানার কোয়ালিটি ইন্সপেক্টর শাহ আলম (৩৮), তার স্ত্রী একই কারখানার সুইং অপারেটর মনিরা বেগম (৩০), তাদের ছেলে বায়েজিদ (৮) ও মেয়ে ফাতেমা (৪)।

শাহ আলমের বাড়ি পটুয়াখালীর বাউফল থানায়। তার পিতার নাম রহিম মৃধা।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের বাসন থানার ওসি একেএম কাউসার চৌধুরী জানান, স্বামী স্ত্রী কারখানায় কাজ করেন। রাতে বাড়ি ফিরে ঘরের ভিতর এলপি গ্যাসের চুলায় রান্না করছিল স্ত্রী মনিরা বেগম। এক পর্যায়ে গ্যাসের চুলার পাইপ লিকেজ হয়ে আগুন ধরে যায়। পরে আগুন দ্রুত ঘরে ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় ঘরে থাকা চারজন অগ্নিদগ্ধ ও শ্বাসরোধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান। খবর পেয়ে গাজীপুর ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে আগুন নেভায়।

জয়দেবপুর ফায়ার সার্ভিসের সিনিয়র স্টেশন অফিসার মো. জাকির হোসেন জানান, ইসলামপুর এলাকায় মো. ইকবাল হোসেনের বাড়িতে স্ত্রী ও দুই সন্তান নিয়ে ভাড়া থাকতেন শাহ আলম। ঘটনার সময় রাতে গ্যাসের চুলায় রান্না করছিল শাহ আলমের স্ত্রী মনিরা। একপর্যায়ে গ্যাস সিলিন্ডার লিকেজ হয়ে পুরো ঘরে আগুন লেগে যায়। এ সময় ঘরে থাকা শাহ আলম, তার স্ত্রী মনিরা, ছেলে বায়েজিদ ও মেয়ে ফাতেমা অগ্নিদগ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান। খবর পেয়ে জয়দেবপুর ফায়ার স্টেশনের তিনটি ইউনিটের কর্মীরা ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নেভায়। আগুনে টিনশেড ঘর ও ঘরের সব মালামাল পুড়ে গেছে। এ সময় ঘরে থাকা শিশু ফাতেমা অগ্নিদগ্ধ হয়ে এবং বাকিরা শ্বাসরুদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান।

নিহত মনিরার ভাই পারভেজ জানান, রাতের খাবারের জন্য তার বোন মনিরা বেগম সিলিন্ডার গ্যাসের চুলায় রান্না করছিলেন। এক পর্যায়ে গ্যাস সিলিন্ডারে লিকেজ থেকে প্রচণ্ড বেগে গ্যাস বের হয়ে অগ্নিকাণ্ডের সৃষ্টি হয়। মুহুর্তের মধ্যে আগুন পুরো ঘরে ছড়িয়ে পড়ে।


আরো সংবাদ




gebze evden eve nakliyat Paykasa buy Instagram likes Paykwik Hesaplı Krediler Hızlı Krediler paykwik bozdurma tubidy