১৯ জুলাই ২০১৮

সড়কে লাশের মিছিল : দুর্ঘটনায় ৭ জেলায় নিহত ৩১

-

এ যেন সড়কে লাশের মিছিল। দেশের সাত জেলায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ৩১ জন নিহত হয়েছেন। গতরাত থেকে আজ এ পর্যন্ত এই প্রাণহানির ঘটনা ঘটে। এর মধ্যে গাইবান্ধার পলাশবাড়ি উপজেলায় বাস উল্টে ১৬ জন এবং রংপুর সদরে বিআরটিসির বাসে ট্রাকের ধাক্কায় ছয়জন নিহত হয়েছেন।

ফরিদপুরের ভাঙ্গায় বাস খাদে পড়ে দুইজন, নাটোরে ট্রাকচাপায় দুই অটোরিকশা আরোহী, গোপালগঞ্জে বাসচাপায় দুই মোটরসাইকেল অরোহী, চুয়াডাঙ্গায় মোটরসাইকেলের ধাক্কায় এক পথচারী এবং সাভারের আমিনবাজারে বাস ও ট্রাকের সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

এসব দুর্ঘটনায় আরও অর্ধ শতাধিক মানুষ আহত হয়েছেন বলে সংশ্লিষ্ট থানা ও ফাঁড়ির পুলিশ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।
তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের সবার নাম পরিচয় জানা যায়নি।


গাইবান্ধা
গাইবান্ধার পলাশবাড়িতে রাস্তার পাশের গাছের সঙ্গে ধাক্কা খেয়ে একটি বাস উল্টে অন্তত ১৬ জনের মৃত্যু হয়েছে; আহত হয়েছেন আরও অন্তত ৪০ জন। শনিবার ভোর সাড়ে ৪টার দিকে উপজেলার ব্র্যাক মোড়ের কাছে বাঁশকাটা (গরুরহাট) এলাকায় রংপুর-ঢাকা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানার ওসি আকতারুজ্জামান জানান। তাৎক্ষণিকভাবে তিনি হতাহতদের নাম পরিচয় জানাতে পারেননি। গাইবান্ধা গাইবান্ধা তিনি বলেন, ঢাকা থেকে ঠাকুরগাঁও জেলার রানীশংকৈলের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা আলম এন্টারপ্রাইজ পরিবহনের বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে সড়কের বাঁ পাশে বড় একটি রেইনট্রি গাছের সঙ্গে ধাক্কা খায় এবং উল্টে যায়।এতে বাসটির সামনের অংশ দুমড়ে-মুচড়ে যায়; ঘটনাস্থলেই নিহত হন সাতজন। পুলিশ, হাইওয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা আহতদের উদ্ধার করে পলাশবাড়ি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে সেখানে আরও নয় জনের মৃত্যু হয়।
আহতদের মধ্যে কয়েকজনকে রংপুর ও বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। লাশগুলো রাখা হয়েছে গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানায়। পরিচয় শনাক্তের পর সেগুলো পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

রংপুর
রংপুর সদর উপজেলার শলেয়াশাহ বাজারের কাছে রংপুর-দিনাজপুর মহাসড়কের পাশে দাঁড়িয়ে থাকা বিআরটিসির একটি দোতলা বাসে ট্রাকের ধাক্কায় ছয়জন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার রাত ২টার দিকে এ দুর্ঘটনায় আরও ১৩ জন আহত হয়েছেন বলে তারাগঞ্জ হাইওয়ে থানার ওসি জানান।
তিনি বলেন, দিনাজপুর থেকে ছেড়ে আসা বিআরটিসির ঈদ স্পেশাল দোতলা বাসটি ঢাকা যাচ্ছিল। শলেয়াশাহ বাজারের কাছে এসে বাসের একটি চাকা ফেটে যায়। চালক ও চালকের সহযোগী তখন রাস্তার পাশে বাস থামিয়ে চাকা বদলাতে শুরু করেন। বাসের কিছু যাত্রীও নেমে এসে দাঁড়িয়ে দেখছিলেন। এমন সময় একটি বালুবাহী ট্রাক এসে পেছন থেকে বিআরটিসির বাসটিকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই ছয়জনের মৃত্যু হয়।
খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিট এসে আহতদের উদ্ধার করে তারাগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্র ও রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। নিহতরা সবাই ছিলেন বাসের আরোহী। তাদের মধ্যে নিশাত ও সাজ্জাদ নামে দুইজনের পরিচয় জানা গেছে।


নাটোর
নাটোর শহরে বালুবোঝাই ট্রাকের ধাক্কায় দুই অটোরিকশা আরোহীর মৃত্যু হয়েছে। শনিবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে নাটোর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে সদর থানার ওসি মশিউর রহমান শিকদার জানান।
নিহতরা হলেন নলডাঙ্গা উপজেলার সোনাপাতিল গ্রামের সুদিষ্ণু দেবনাথ (৫৫) ও তার প্রতিবেশী কানাইচন্দ্র (৩০)।
সুদিষ্ণুর স্ত্রী ও মেয়েও এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন। তাদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।


গোপালগঞ্জ
গোপালগঞ্জে বাসচাপায় মোটরসাইকেলের দুই আরোহী নিহত হয়েছেন। এছাড়া আরও ১১ জন আহত হয়েছেন।
শনিবার সকাল পৌনে ৮টার দিকে গোপালগঞ্জ-টুঙ্গিপাড়া সড়কে গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার ঘোনাপাড়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। গোপালগঞ্জ গোপালগঞ্জ নিহতরা হলেন বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা রিসোর্স ইন্টিগ্রেশন সেন্টার (রিক) গোপালগঞ্জ অফিসের রেজিস্ট্রার ইমরান হোসেন (৩৮) ও মাঠ কর্মকর্তা পুলক ব্যাপারি (৩৪)। তাদের আরেক সহকর্মী রুবেল ফকিরসহ (৩৫) ১১ জনকে গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।


ফরিদপুর
ফরিদপুরের ভাঙ্গায় তুহিন পরিবহনের একটি বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদে পড়ে দুই যাত্রী নিহত হয়েছেন । এ দুর্ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও অন্তত ২০ জন। তাদের ভাঙ্গা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে । শনিবার সকাল ৯টার দিকে ঢাকা-বরিশাল মহাসড়কে পূর্ব সদরদি এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে ।
ফরিদপুর ফরিদপুর ফরিদপুর ফায়ার সার্ভিসের জ্যেষ্ঠ স্টেশন মাস্টার সাইফুজ্জামান বলেন, সকাল ৯টার দিকে বরিশাল থেকে রাজশাহীগামী বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারায়। রাস্তার পাশে খাদে পড়ে গেলে ঘটনাস্থলেই দুইজন নিহত হন। আহত হন অন্তত ২০ জন। স্থানীয়দের সহযোগিতায় ভাঙ্গা হাইওয়ে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসকর্মীরা হতাহতদের উদ্ধার করে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও ভাঙ্গা হাসপাতালে পাঠায় বলে তিনি জানান।

সাভার
ঢাকার সাভারে বাস ও ট্রাকের সংঘর্ষে একজনের মৃত্যু হয়েছে। সাভার থানার ওসি মোহসিনুল কাদির জানান, শনিবার সকাল ৮টার দিকে আমিনবাজারে কাছে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।
আমিনবাজার, ঢাকা আমিনবাজার, ঢাকা থানার পরিদর্শক সাজ্জাদ হোসেন জানান, দ্রুতি পরিবহনের বাসটি ঢাকার দিকে যাচ্ছিল। এ সময় একটি ট্রাক ইউ টার্ন নিতে গেলে দুই বাহনের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে এক বাসযাত্রী ঘটনাস্থলেই মারা যান।
এ দুর্ঘটনায় আরও কয়েকজনের আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেলেও তারা কে কোন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন- সে তথ্য জানাতে পারেনি পুলিশ।

চুয়াডাঙ্গা
চুয়াডাঙ্গা সদর উপজেলার আলোকদিয়া গ্রামে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় এক পথচারীর মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে আলোকদিয়া গ্রামের প্রধান সড়কে এ দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেলের দুই আরোহীও আহত হয়েছেন বলে চুয়াডাঙ্গা সদর থানার ওসি দেলোয়ার হোসেন খান জানান।
নিহত পথচারী ওবায়দুর রহমান (৫০) ওই গ্রামের মৃত ইরফান আলীর ছেলে। মোটরসাইকেলের আরোহী মহসিন আলীকে (২৬) চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে এবং চালক মাসুদ রানাকে (২৮) রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বালিয়াকান্দি (রাজবাড়ী)
গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়া ঘাটে বাসের চাকায় পৃষ্ট হয়ে ইমন (২০) নামের এক চালকের সহকারীর (হেলপার) মৃত্যু হয়েছে। শনিবার বেলা ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।
প্রত্যক্ষদর্শী জানায়, ফরিদপুর থেকে দৌলতদিয়া ঘাটের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা একটি লোকাল বাস বেলা ১২টার দিকে দৌলতদিয়া তেলের পাম্পের কাছে পৌঁছায়। এ সময় সড়ক পার হওয়ার জন্য অজ্ঞত এক মহিলা দৌড় দিলে লোকাল বাসটির চালক দ্রুত পাশ কাটতে গেলে হেলপার ইমন ছিটকে পড়ে বাসের চাকায় পৃষ্ট হয়। এ সময় স্থানীয়রা ইমনকে উদ্ধার করে গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে জরুরী বিভাগের চিকিৎসক ডা. নুরুল ইসলাম তাকে মৃত ঘোষনা করেন।
গোয়ালন্দ ঘাট থানার এসআই সনাতন জানান, নিহত ব্যাক্তির নাম ছাড়া আর কোন তথ্য আমরা পাইনি। তবে পরিবারের সন্ধান করে খবর দেয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে।


আরো সংবাদ