২২ আগস্ট ২০১৯

বৃষ্টির মধ্যেই বিপুল উদ্দীপনায় ঈদের জামাত

বৃষ্টির মধ্যেই বিপুল উদ্দীপনায় ঈদের জামাত - সংগৃহীত

ভারী বৃষ্টির মধ্যেই বিপুল উদ্দীপনায় রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হয়েছে। হঠাৎ বৃষ্টির কারণে অনেকেই ভিজে ভিজে ঈদগাহ ও মসজিদে হাজির হন নামাজ পড়তে। বিশেষ করে জাতীয় ঈদগায়ে প্রধান জামাতে শরিক হওয়া মুসুল্লিরা বেশ বিপাকে পড়েন।

রাতে বৃষ্টি হলেও সকালের রোদের দেখা মেলে। কিন্তু হঠাৎ ঈদের দিন (বুধবার) সকাল পৌঁনে ৮টার দিকে আকাশ কালো কালো মেঘে ঢেকে গিয়ে নামে ঝুম বৃষ্টি।

তখন রাজধানীর বিভিন্ন প্রান্ত থেকে মুসল্লিরা প্রধান জামাতে অংশ নেয়ার জন্য আসছিলেন। তারা সারি ধরে আর্চওয়ের মধ্য দিয়ে প্রবেশ করছিলেন। হঠাৎ বৃষ্টি নামায় বিপদে পড়ে যান তারা। ঈদগাহের সামনে বিপুল সংখ্যক মানুষ জমে যায়। একসঙ্গে অনেক মানুষ জমে যাওয়ায় বিশৃঙ্খলার আশঙ্কায় বেরিকেড দিয়ে মানুষের প্রবেশে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। এ সময় বৃষ্টিতে ভিজতে থাকা অনেকেই পুলিশের সঙ্গে বিতর্কে জড়িয়ে পড়েন।

পরে পুলিশ ব্যারিকেড সরিয়ে নিলে একযোগে মুসল্লিরা ঈদগাহ মাঠের সামিয়ানার মধ্যে প্রবেশ করেন।

অনেককেই ভিজে জবুথবু অবস্থায় ঈদগাহে প্রবেশ করতে দেখা গেছে। ভারী বৃষ্টির কারণে ঈদগাহের অনেক স্থানে সামিয়ানা দিয়ে পানি পড়তে দেখা গেছে।

ঈদের প্রধান জামাত সকাল সাড়ে ৮টায় শুরু হয়। এরপর মোনাজাতের মাধ্যমে বেলা ৮টা ৫৫ মিনিটে শেষ হয়।
প্রধান জামাতে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ, প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হাসান, মন্ত্রিসভার সদস্যসহ বিশিষ্ট ব্যক্তিরা অংশ নেন।

জাতীয় ঈদগাহে প্রধান জামাতে ইমামতি করেন বায়তুল মুকাররম জাতীয় মসজিদের সিনিয়র পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা মুহাম্মদ মিজানুর রহমান।
দেশের সবচেয়ে বড় জামাতত হয় কিশোরগঞ্জের শোলাকিয়ায়। সেখানেও বৃষ্টির মধ্যেই নামাজ হয়।


আরো সংবাদ




mp3 indir bedava internet