২৬ এপ্রিল ২০১৯
নিউ ইয়র্কে এসএএসএফ-এর প্রেস ব্রিফিং

আসামে জাতিগত নিধন বন্ধে জাতিসঙ্ঘকে অচিরেই কার্যকর উদ্যোগ নিতে হবে

প্রেস কনফারেন্সে উপস্থিত বক্তারা -

ভারতের উত্তর পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য আসামের প্রায় চল্লিশ লাখ লোক জাতীয় নাগরিক তালিকার খসড়া থেকে চূড়ান্তভাবে বাদ পড়ার ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে সাউথ এশিয়ান সলিডারিটি ফাউন্ডেশন-এসএএসএফ।

মানবতাবিরোধী এ বিতর্কিত তালিকা প্রত্যাহার করতে ভারত সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে সংগঠনটি।

সোমবার নিউ নিউ ইয়র্কেও জ্যাকসন হাইটসে বাংলাদেশ প্লাজা অডিটরিয়ামে আয়োজিত প্রেস ব্রিফিংয়ে একথা বলেন ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক ইমরান আনসারী।

লিখিত বক্তব্যে তিনি আশঙ্কা প্রকাশ করেন, জাতীয় নাগরিক তালিকা থেকে বাংলাভাষাভাষি আসামি মুসলমানদের বাদ দেয়ার মধ্য দিয়ে ভারত সরকার একটি জাতিগোষ্ঠীকে নিধনের পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে। এসব নৃতাত্ত্বিক বাংলাভাষি মানুষ রাখাইনের রোহিঙ্গাদের ভাগ্য বরণ করতে যাচ্ছেন বলে সংগঠনটি পক্ষ থেকে লিখিত বিবৃতিতে জানানো হয়।

আসামের এজনগোষ্ঠীর পাশে দাঁড়াতে ‘আসাম টাস্কফোর্স নামে একটি ক্যাম্পেইন চালুর ঘোষণাও দেয়া হয় ওই প্রেস কনফারেন্সে।

উক্ত প্রেস কনফারেন্সে সংহতি প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন সাউথ এশিয়ান সলিডারিটি ইনিশিয়েটিভের ইন্ডিয়ান আমেরিকান সানিয়া জে, জালালাবাদ অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি বদরুল খান, মাওলানা ভাষানী ফাউন্ডেশন ইউএস ইনক-এর সেক্রেটারি আলী ইমাম, ওয়ার্ল্ড রোহিঙ্গা অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট মহিউদ্দিন ইউসুফ, বাংলাদেশি আমেরিকান অ্যাডভোকেসি গ্রুপের সেক্রেটারি জয়নুল আবেদীন, ইউএনএ-ইউএসএ কুইন্স চাপ্টারের প্রেসিডেন্ট সুলতান মারুফ, কমিউনিটি অ্যাক্টিভিস্ট অ্যাডভোকেট মুজিবুর রহমান, বাংলাদেশ সোসাইটির সাবেক সহ-সভাপতি ফারুক হোসেন মজুমদার প্রমুখ।

সানিয়া জে বলেন, নাগরিকত্ব তালিকা থেকে বাদ দেয়ার পাশাপাশি তাদেরকে ভূমি থেকে উচ্ছেদ করে সেল্টারে রাখার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এখনই ঐক্যবদ্ধভাবে আমাদেরকে তা মোকাবেলা করতে হবে।

বদরুল খান বলেন, আসামে মুসলামানদের বিরুদ্ধে যে উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে তা বাংলাদেশি কমিউনিটির জন্য একটি ভয়াবহ বার্তা। ভারত সরকারের এ উদ্যোগ মোকাবেলা করতে যুক্তরাষ্ট্রের প্রশাসনকে সম্পৃক্ত করতে আমাদেরকে দল-মতের ঊর্র্ধ্বে উঠে একযোগে কাজ করতে হবে।

আলী ইমাম বলেন, আসামে যা হচ্ছে তা সাম্রাজ্যবাদী শক্তির অপতৎপরতার শেষ পরিণাম। আসামকে রাখাইন রাজ্যে পরিণত করতেই ভারত সরকার এ বিতর্কিত তালিকা প্রকাশ করেছে।

ওয়ার্ল্ড রোহিঙ্গা অ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট মহিউদ্দিন ইউসুফ বলেন, আসামের মুসলমানরা রোহিঙ্গাদের ভাগ্য বরণ করতে যাচ্ছেন। এটি জাতিসংঘের কনভেনশনের লঙ্ঘন। এজন্য আমাদের জাতিসংঘে আইনগতভাবে লড়তে হবে।

জয়নাল আবেদিন বলেন, আসামের এ মানুষদের রক্ষায় বাংলাদেশকে ভারতের প্রতি কড়া বার্তা প্রেরণ করতে হবে।


আরো সংবাদ




iptv al Epoksi boya epoksi zemin kaplama Daftar Situs Agen Judi Bola Net Online Terpercaya Resmi

Hacklink

Bursa evden eve nakliyat
arsa fiyatları tesettür giyim
Canlı Radyo Dinle hd film izle instagram takipçi satın al ofis taşıma Instagram Web Viewer

canli radyo dinle

Yabanci Dil Seslendirme

instagram takipçi satın al
hd film izle
gebze evden eve nakliyat